ভোপালের প্রতিবন্ধী আবাসিকে যৌন নির্যাতনে মৃত্যু ৩ জনের, বিপাকে শিবরাজের সরকার

২০০৩ সালে থেকে ১০০ জন বিশেষভাবে শারীরিক সক্ষম ছেলে-মেয়েরা বাস করছে ভোপালের ওই আবাসিকে। এদের মধ্যে ৪২ জন ছেলে এবং ৫৮ জন মেয়ে রয়েছে। ওই আবাসিকের মালিক এমপি অবস্থির বিরুদ্ধে অভিযোগ, তাদের উপর প্রতি দিন যৌন নির্যাতন চালানো হয়

Updated By: Sep 15, 2018, 12:53 PM IST
ভোপালের প্রতিবন্ধী আবাসিকে যৌন নির্যাতনে মৃত্যু ৩ জনের, বিপাকে শিবরাজের সরকার
ছবি- ফেসবুক

নিজস্ব প্রতিবেদন: ভোপালের এক আবাসিকে দিনের পর দিন যৌন নির্যাতন চালানোর অভিযোগ উঠল। যার জেরে ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে আবাসিকের সদস্যরা। অভিযোগ উঠেছে ওই বেসরকারি আবাসিকের মালিক অবসরপ্রাপ্ত সেনা অফিসার এমপি অবস্থির বিরুদ্ধে। তদন্তে নেমেছে ভোপাল পুলিস।

আরও পড়ুন- পেট্রোল-ডিজেলের উর্ধ্বমুখী দর, টাকার রক্তক্ষরণের মোকাবিলায় আসরে মোদী

২০০৩ সালে থেকে ১০০ জন বিশেষভাবে শারীরিক সক্ষম ছেলে-মেয়েরা বাস করছে ভোপালের ওই আবাসিকে। এদের মধ্যে ৪২ জন ছেলে এবং ৫৮ জন মেয়ে রয়েছে। ওই আবাসিকের মালিক এমপি অবস্থির বিরুদ্ধে অভিযোগ, তাদের উপর প্রতি দিন যৌন নির্যাতন চালানো হয়। শারীরিক নির্যাতন এতটাই নির্মম, যার জেরে প্রাণ গিয়েছে ৩ কিশোরের। পুলিসের কাছে ওই আবাসিকের সদস্যদের অভিযোগ, নির্মমভাবে যৌন নির্যাতন চালানোয় অত্যাধিক রক্তক্ষরণে মৃত্যু হয় এক কিশোর। আর একজনকে দেওয়ালে মাথা ঠুকে হত্যা করে। অত্যাধিক ঠান্ডার সময় ঘরের বাইরে দাঁড় করিয়ে রাখায় মৃত্যু হয় তৃতীয় জনের। ২০১৭ সালে এই বিষয়টি নিয়ে রাজ্য সরকারের সামাজিক ন্যায়দফতরে দ্বারস্থ হয় নির্যাতিত কিশোর-কিশোরীরা। অভিযোগ, কোনও পদক্ষেপ নেয়নি ওই সরকারি দফতর। এর পর পুলিসে এফআইআর করে তারা।

আরও পড়ুন- জম্মু-কাশ্মীরের কুলগমে চলছে জঙ্গি-সেনার সংঘর্ষ, হত ৩ জঙ্গি

পুলিস জানিয়েছে, এই আবাসিকে দীর্ঘদিন কোনও নিরাপত্তা রক্ষী ছিল না। স্থানীয় বাসিন্দাদেরও এক মত। তাঁদের অভিযোগ, নিরাপত্তা রক্ষীকে সরিয়ে দিয়েছে ওই আবাসিকের মালিকই। ১৯৯৫ সাল থেকে সরকারি অনুদানে রমরমিয়ে চলছে  প্রতিবন্ধী এই আবাসিকটি। অভিযুক্ত  অবসরপ্রাপ্ত সেনা অফিসার এমপি অবস্থি এবং তাঁর সহযোগী কবিতা চৌধুরিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাঁদের বিরুদ্ধে ৩৭৭, ৩৭৬, ৩৫৪, ৫০৬, ৩২৩ ধারায় মামলা দায়ের করেছে পুলিস।

এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ইতিমধ্যেই রাজনৈতিক তরজা শুরু হয়ে গিয়েছে মধ্যপ্রদেশে। সামনেই মধ্যপ্রদেশের নির্বাচন। আবাসিক কাণ্ডের জেরে আগেই বিপাকে রয়েছে শিবরাজ সিং চৌহানের সরকার। রাজ্যের সব আবাসিকের অবস্থা খতিয়ে দেখার নির্দেশ দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহান। ফের নতুন করে এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসায় রীতিমতো অস্বস্তিতে বিজেপি সরকার। সরকারের বিরুদ্ধে কংগ্রেস অভিযোগ তুলেছে, অভিযুক্ত এমপি অবস্থির বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ নেয়নি সরকার। সব জেনে শুনে উল্টে অবস্থির আরও একটি সংস্থাকে অনুদান দেওয়া হচ্ছে।