বামপন্থীদের কবেই বা জাতীয় পতাকার সম্মান নিয়ে চিন্তা ছিল! খোঁচা তথাগতর

স্বামী বিবেকানন্দের একটি মূর্তি উন্মোচনের আগে বিকৃত করেছে একদল অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিরা।

Updated By: Nov 15, 2019, 06:44 PM IST
বামপন্থীদের কবেই বা জাতীয় পতাকার সম্মান নিয়ে চিন্তা ছিল! খোঁচা তথাগতর

নিজস্ব প্রতিবেদন: জেএনইউ ক্যাম্পাসে স্বামী বিবেকানন্দের মূর্তি বিকৃত করার ঘটনায় বামপন্থীদের কাঠগড়ায় তুললেন মেঘালয়ের রাজ্যপাল তথা রাজ্য বিজেপির প্রাক্তন সভাপতি তথাগত রায়। 

হস্টেল ফি-সহ একাধিক দাবিতে আন্দোলন চলছে জেএনইউ ক্যাম্পাসে। ঠিক তখনই স্বামী বিবেকানন্দের একটি মূর্তি উন্মোচনের আগে বিকৃত করেছে একদল অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিরা। ওই ঘটনায় বামপন্থী ছাত্র সংগঠনগুলিকে দায়ী করেছে গেরুয়া শিবির। মেঘালয়ের রাজ্যপাল টুইটারে প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন, আমরা কেন ভুলে যাই যে গেরুয়া জাতীয় পতাকার সবচেয়ে উপরে থাকে। গেরুয়াকে গালাগালি করা তাই জাতীয় পতাকার অপমান। তাঁর কটাক্ষ, বামপন্থীদের কবেই বা জাতীয় পতাকার সম্মান নিয়ে চিন্তা ছিল? 

জেএনইউ ক্যাম্পাসে স্বামী বিবেকানন্দের মূর্তিটি উন্মোচন হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার আগেই সেটি বিকৃত করে একদল অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তি। গোটা ঘটনাটি ভিডিয়ো রেকর্ডিং করেন নিরাপত্তা রক্ষীরা। সংবাদসংস্থা এএনআই মূর্তির কিছু ছবিও প্রকাশ করেছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে গেরুয়া কাপড়ে ঢেকে রাখা হয়েছে বিবেকানন্দের মূর্তি। আর তার তলায় লেখা, গেরুয়া জ্বালাও, F*** বিজেপি।

ছাত্রদের আন্দোলনকে কালিমালিপ্ত করতে গোটাটাই ষড়যন্ত্র বলে অভিযোগ করেছেন জেএনইউ-র ছাত্র সংসদের সভাপতি ঐশী ঘোষ। তিনি বলেছেন, 'বিবেকানন্দের মূর্তি ভাঙাকে সমর্থন করি না। আমরা আলাপ-আলোচনার মধ্যে সমস্যার সমাধানে বিশ্বাসী। এটা জেএনইউ ছাত্ররা করেনি। বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা কোনও ধরনের গুন্ডামিকে সমর্থন করে না। তবে আন্দোলনকে বিপথগামী করতে নানা ধরনের অপপ্রচার চলছে।''

আরও পড়়ুন- সতীচ্ছদ অক্ষত না থাকলেও প্রথম রাতে রক্তপাত নিশ্চিতের দাওয়াই বিকোচ্ছে আমাজনে