সাথ দিল না সার্ভার, চুলের সাথে চাকরিও হারালেন Uber চালক

জীবনে উন্নতির জন্য মাথা মুড়িয়ে তিরুপতির মন্দিরে চুল নিবেদন করেছিলেন

Updated By: Apr 2, 2021, 11:36 AM IST
সাথ দিল না সার্ভার, চুলের সাথে চাকরিও হারালেন Uber চালক

নিজস্ব প্রতিবেদন: ভগবানের কাছে মানত করে সুখ চেয়েছিলেন। ভগবানের দরবারে চুলও অর্পণ করেছিলেন। কিন্তু সাথ দিল না সার্ভার। চুলের সাথে সাথে চাকরিও খোয়ালেন উবর (Uber) চালক। হায়দ্রাবাদের (Hyderabad) বাসিন্দা পেশায় উবর চালক শ্রীকান্ত প্রায় দেড় বছর ধরে ট্যাক্সি চালাচ্ছেন। রেটিংও রয়েছে ৫ এ ৪.৬৭। জীবনে উন্নতির জন্য মাথা মুড়িয়ে তিরুপতির মন্দিরে চুল নিবেদন করেছিলেন। আর তাতেই হল বিপত্তি। 

আরও পড়ুন: 'একজন Covid-রোগীর থেকে আক্রান্ত ৪০০ জন' আজই হতে পারে বড় ঘোষণা

উবরের পোর্টালে লগ ইন করতে গেলে সেখানে সার্ভার শ্রীকান্তের নতুন মুখ চিনতেই পারল না। প্রায় ৪ বার বিভিন্ন উপায়ে লগ ইন করতে গেলেও তা ব্যর্থ হয়। বারবার উবরের অফিসে আগের ও বর্তমান ছবি নিয়ে ছুটে গেলেও কাজ হয়নি। উদাসীন কর্তৃপক্ষ অবশেষে উবরের পোর্টাল থেকে সরিয়ে দেয় শ্রীকান্তের নাম। চাকরি খুইয়ে প্রায় একমাস ধরে বেকার শ্রীকান্ত।

আরও পড়ুন: ২০২৪-এ বারাণসীতে 'মোদী বনাম দিদি'? TMC-র 'টুইট চ্যালেঞ্জ', যুদ্ধে মজে নেটিজেনরা

শ্রীকান্তের এই ঘটনা শেয়ার করেন ইন্ডিয়ান ফেডারেশন অফ অ্যাপ-বেস্ড ট্রান্সপোর্ট ওয়ার্কার্স এর জেনারেল সম্পাদক শেখ সালাউদ্দিন। আর তারপরই তা নেটদুনিয়ায় তুমুল ভাইরাল হয়। বারবার অভিযোগ সত্ত্বেও কেন তা নেওয়া হল না সেই প্রশ্নও তোলেন তিনি। যদিও এ বিষয়ে উবরের সাফাই, নিরাপত্তাজনিত কারণেই শ্রীকান্তকে সরানো হয়। মুখমন্ডলীর সামান্য কিছু পরিবর্তনে ফেসিয়াল রিকগনিশনে (Facial Recognition) কোনো অসুবিধা হয় না । কিন্তু একেবারে চুল ছেঁটে ফেললে লগ ইনে প্রযুক্তিগত সমস্যা হয়। আর ঠিক তেমনটাই ঘটল শ্রীকান্তের ক্ষেত্রে।