কেন কোহলিই পাচ্ছেন খেলরত্ন, স্পষ্ট করল ক্রীড়ামন্ত্রক

হাতে ‘শূন্য অঙ্ক’ নিয়েই রাজীব গান্ধী খেলরত্ন পুরস্কার পাচ্ছেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক।

Updated By: Sep 24, 2018, 06:58 PM IST
কেন কোহলিই পাচ্ছেন খেলরত্ন, স্পষ্ট করল ক্রীড়ামন্ত্রক

নিজস্ব প্রতিবেদন: আর কোনও সন্দেহের অবকাশই রইল না। হাতে ‘শূন্য অঙ্ক’ নিয়েই রাজীব গান্ধী খেলরত্ন পুরস্কার পাচ্ছেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক। ৪৪ পয়েন্ট পাওয়া ইম্ফলের মেয়ে মীরাবাই চানুর সঙ্গে যৌথভাবে খেলরত্ন সম্মানে সম্মানিত হচ্ছেন বিরাট কোহলি।

আরও পড়ুন- শূন্য পয়েন্ট নিয়ে খেলরত্ন পাবেন বিরাট কোহলি, ৮০ পয়েন্ট পেয়েও বাদ বজরং পুনিয়া!

ভারতীয় ক্রিকেট অধিনায়ককে খেলরত্ন দেওয়ার সপক্ষে যুক্তি খাড়া করে কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রক জানিয়ে দিল, “যখন কোনও একই ক্রীড়াক্ষেত্র থেকে ক্রীড়াব্যক্তিদের বাছাই করা হয়, কেবল তখনই পয়েন্টকে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়।” ক্রীড়ামন্ত্রকের তরফে আরও জানানো হয়, “বিরাট কোহলি আইসিসি-র ২টি ফরম্যাটেই (টেস্ট ও একদিনের আন্তর্জাতিক) শীর্ষস্থানে রয়েছেন। এবং চানু (মীরাবাই) এই মুহূর্তে একমাত্র ভারতীয় অ্যাথেলিট যিনি অলিম্পিক্স তালিকাভুক্ত খেলায় (ভারোত্তলন) বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন।”

আরও পড়ুন- খেলরত্ন সম্মানে সম্মানিত হচ্ছেন বিরাট ও মীরাবাই

সম্প্রতি বিরাট কোহলি আর মীরাবাই চানুর নাম খেলরত্ন পুরস্কারের জন্য প্রস্তাবিত হওয়ার পরই তৈরি হয় বিতর্ক। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়, ‘শূন্য পয়েন্ট পেয়েও কোহলিকে খেলরত্ন দেওয়া হচ্ছে। অথচ ৮০ পয়েন্ট পেয়েও ক্রীড়াক্ষেত্রের সর্বোচ্চ সম্মান থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন কুস্তিগীর বজরং পুনিয়া’। এশিয়ান গেমসে (২০১৮) স্বর্ণপদক জয়ী ২৪ বছরের এই কুস্তিগীরও দাবি করে বসেন, তিনিই খেতরত্নের দাবিদার।

পুনিয়ার এই দাবিকে সামনে রেখেই আড়াআড়ি ভাগ হয়ে যায় ওয়াকিফহাল মহল। যদিও  পুরস্কার প্রদানকারী কমিটির (কারা সম্মানিত হবেন সেই প্রার্থী ঠিক করেন যারা) সিংহভাগই বিরাটের পারফরম্যান্সে এতটাই প্রসন্ন যে বিরাটকে খেলরত্ন দেওয়ার ব্যাপারে তাঁরা এক কথাতেই সম্মতি জানায়। তবে হ্যাঁ, ওই কিমিটির অনেকেই আবার এই সিদ্ধান্তে সহমত হননি। যা নিয়ে তোলপাড় হয় ক্রীড়ামহলও। বিরাটকে  খেলরত্ন প্রদানের সিদ্ধান্ত পক্ষপাতদুষ্ট, এমনও অভিযোগ করেন কেউ কেউ। রবিবার বিরাটের মনোনয়ন নিয়ে নিজেদের অবস্থান স্পষ্ট করে খেলরত্ন বিতর্কের ইতি টানল কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রক।