আধার কার্ড করাতে গিয়ে ফাঁস হল মাহির 'গোপন তথ্য', মন্ত্রী রবিশঙ্করকে অভিযোগ জানালেন স্ত্রী সাক্ষী

আধার অ্যাপলিকেশন থেকে ফাঁস হয়ে গেল ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির 'গোপন তথ্য', কেন্দ্রীয় আইন মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদকে অভিযোগ জানালেন সাক্ষী ধোনি। 

Updated: Mar 29, 2017, 01:44 PM IST
আধার কার্ড করাতে গিয়ে ফাঁস হল মাহির 'গোপন তথ্য', মন্ত্রী রবিশঙ্করকে অভিযোগ জানালেন স্ত্রী সাক্ষী

ওয়েব ডেস্ক: আধার অ্যাপলিকেশন থেকে ফাঁস হয়ে গেল ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির 'গোপন তথ্য', কেন্দ্রীয় আইন মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদকে অভিযোগ জানালেন সাক্ষী ধোনি। 

আধার অ্যাপলিকেশনের জন্য রাঁচিতেই সপরিবারে সিএসসি এজেন্সিতে হাজির হয়েছিলেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। সেখানে নিজের সমস্ত তথ্য দিয়ে আধার কার্ডের অ্যাপলিকেশন করান তিনি। সিএসসি এজেন্সির কর্মীর সঙ্গে ছবিও তোলেন ধোনি।  সেই  ছবি এবং সব ব্যক্তিগত তথ্য সমৃদ্ধ অ্যাপলিকেশনের ছবি টুইটারে আপলোড করা হয়েছে, এই অভিযোগই করেছেন ঘটনার সাক্ষী মাহির স্ত্রী। টুইটে কেন্দ্রীয় আইন মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদকে এই গোটা ঘটনার কথা জানান তিনি এবং প্রশ্ন তোলেন, "এরপরেও কি কোনও গোপনীয়তা অবশিষ্ট রয়েছে"? সাক্ষী ধোনির এই অভিযোগের প্রাপ্তি স্বীকার করেছেন রবিশঙ্কর প্রসাদ। পক্ষান্তরে সাক্ষীও ধন্যবাদ জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে। 

গোটা ঘটনায় বিজেপিকে বিঁধেছেন কংগ্রেসের বর্ষীয়ান নেতা দিগ্বিজয় সিং, "এখনই ক্ষমা চাওয়া উচিত তাঁর (রবিশঙ্কর প্রসাদ)। আর সরকারের উচিত ধোনিকে একটি নতুন আধার কার্ড দেওয়া। ধোনির স্ত্রীর এই বিষয়ে ক্ষোভ হওয়া স্বাভাবিক"। উল্লেখ্য, আধার নিয়ে ভারতের শীর্ষ আদালতের নির্দেশ ছিল, কেউই ব্যক্তি গোপনীয়তায় হস্তক্ষেপ করতে পারবে না। ধোনির ব্যক্তিগত তথ্য ফাঁসের ঘটনা সামনে আসতেই বেআব্রু হল ভারতীয় নাগরিকের 'রাইট টু প্রাইভেসি'র অধিকার। পিটিআই সূত্রের খবর ধোনির ব্যক্তিগত তথ্য যে কোম্পানি ফাঁস করেছে তাদের ১০ বছর বেআইনি ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় সরকার।