ম্যাচ গড়াপেটার প্রস্তাব গোপন রাখার অভিযোগে ১৮ মাস নির্বাসিত হতে পারেন সাকিব!

সাকিবকে জাতীয় দলের সঙ্গে অনুশীলন না করার নির্দেশ দিয়েছে আইসিসি।

Updated By: Oct 29, 2019, 01:31 PM IST
ম্যাচ গড়াপেটার প্রস্তাব গোপন রাখার অভিযোগে ১৮ মাস নির্বাসিত হতে পারেন সাকিব!

নিজস্ব প্রতিবেদন : বাংলাদেশ ক্রিকেটে ডামাডোলের মাঝেই দুঃসংবাদ। ভারত সফরের আগে বড় ধাক্কা বাংলাদেশ শিবিরে। আসন্ন ভারত সফরে আসছেন না সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সূত্রে এমনই খবর। ম্যাচ গড়াপেটার প্রস্তাব গোপন রাখার জন্য সাকিব আল হাসানকে ১৮ মাস নির্বাসিত করতে পারে বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা আইসিসি।

 

বিসিবি সূত্রে খবর, দু'বছর আগে একটি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ম্যাচের আগে এক জুয়াড়ির কাছ থেকে ম্যাচ গড়াপেটার প্রস্তাব পান সাকিব আল হাসান। তিনি সেই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলেও নিয়মানুযায়ী আইসিসি-র দুর্নীতি দমন শাখাকে এ বিষয়ে কিছুই জানাননি সাকিব। পুরো বিষয়টি গোপন রেখে দেন। তবে ওই জুয়াড়ির কল ট্র্যাকিং করে বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে আইসিসি-র অ্যান্টি করাপশন ইউনিট। কিছুদিন আগে সাকিব আল হাসানের সঙ্গে কথাও বলেন ACU-র প্রতিনিধি দল। সেখানে বিষয়টি স্বীকার করে নেন সাকিব।  বাংলাদেশের ওই সংবাদমাধ্যম সূত্র বলেছে, সম্ভবত আইসিসির দুর্নীতি দমন সংস্থার রায়ে ১৮ মাসের জন্য নির্বাসিত হতে চলেছেন সাকিব। ম্যাচ গড়াপেটার প্রস্তাব পেয়েও তা গোপন রাখার অপরাধে এই শাস্তি পেতে পারেন সাকিব।

সোমবার বিসিবি-র একাধিক শীর্ষকর্তার সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সাকিব পরবর্তী সময়ে আইসিসি-র অ্যান্টি করাপশন ইউনিটকে সাহায্য করায় তারা একটু হলেও নমনীয় হয়েছে। সেক্ষেত্রে সাকিব আপিল করলে শাস্তি কমতে পারে সাকিবের। বিসিবি-র সহযোগিতার পাশাপাশি সাকিব আইসিসি-র কাছেও ক্ষমা চেয়ে শাস্তি মকুবের আবদেন করবেন বলেও জানা গিয়েছে। আইসিসি দুর্নীতি দমন শাখার নিয়ম মেনে চললে এই শাস্তি ১৮ মাস থেকে ৬ মাসে নেমে আসতে পারে। যা আইসিসি-র নিয়ম অনুযায়ী সর্বনিম্ন শাস্তি।

আরও পড়ুন - এবার জঙ্গিদের নিশানায় ক্যাপ্টেন কোহলি! হুমকি চিঠিতে নিরাপত্তা বাড়ল টিম ইন্ডিয়ার

আইসিসি ইতিমধ্যে সাকিবের বিষয়ে বিস্তারিত ভাবে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে জানিয়েছে। তাই সাকিবকে জাতীয় দলের সঙ্গে অনুশীলন না করার নির্দেশ দিয়েছে আইসিসি। যদিও অসুস্থতার কারণে জাতীয় দলের সঙ্গে অনুশীলন করছে না সাকিব, এমনটাই জানানো হয়েছে। পরিস্থিতি যা, তাতে সাকিব আল হাসানকে ছাড়াই আপাতত ভারত সফরে যেতে হবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে।

তথ্যসূত্র: সমকাল, কালের কণ্ঠ