সেতুর ভগ্নদশা, রাতের অন্ধকারে মর্মান্তিক পরিণতি ২ বাইক আরোহীর

সেইসময় ক্যানালে জল বেশি ছিল। ফলে মুহূর্তের মধ্যে ক্যানালের জলে তলিয়ে যান ২ বাইক আরোহী।  

Updated: Sep 12, 2018, 11:18 AM IST
সেতুর ভগ্নদশা, রাতের অন্ধকারে মর্মান্তিক পরিণতি ২ বাইক আরোহীর

নিজস্ব প্রতিবেদন : সেতুর রেলিং ভাঙা। আর সেই ভাঙা রেলিং দিয়ে ডিভিস ক্যানালে পড়ে তলিয়ে গেলেন ২ বাইক আরোহী। মঙ্গলবার রাত ১০টা নাগাদ মর্মান্তিক এই দুর্ঘটনাটি ঘটেছে দুর্গাপুরের ৪১ নম্বর ওয়ার্ডে।

আরও পড়ুন, রাজ্যে লিটার পিছু ১ টাকা কমল পেট্রোল-ডিজেলের দাম, নবান্নে ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

নিখোঁজ ২ বাইক আরোহীর পরিবার সূত্রে জানা গেছে, বাইকে করে শ্মশানে যাচ্ছিলেন তাঁরা। রাতে অন্ধকারে সেতুর রেলিংয়ের ভাঙা অংশ দেখতে পাননি। আর তাতেই বিপত্তি ঘটে। সেতুর ভাঙা রেলিং গলে বাইক নিয়ে সোজা নীচে ক্যানালে পড়ে যান দুজনে। সেইসময় ক্যানালে জল বেশি ছিল। ফলে মুহূর্তের মধ্যে ক্যানালের জলে তলিয়ে যান ২ বাইক আরোহী রবি দাস ও গৌতম যাদব।  

আরও পড়ুন,পেটিএম ব্যবহার করছেন? প্রতারণার ফাঁদ থেকে সাবধান

নিখোঁজ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই শুরু হয় তল্লাশি। নৌকা নিয়ে গভীর রাত পর্যন্ত চলে খোঁজাখুঁজি। কিন্তু নিখোঁজ বাইক আরোহীদের কোনও সন্ধান মেলেনি। বুধবার সকাল থেকে ফের শুরু হয় উদ্ধারকাজ। উদ্ধারে নামে বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী। বেশ খানিকক্ষণ তল্লাশির পর প্রথমে বাইকটিকে দেখতে পাওয়া গিয়েছে। তারপর সকাল সাড়ে ১০টা নাগাদ রবি দাস ও ১১টা নাগাদ গৌতম যাদবের দেহ উদ্ধার হয়। জলে ভেসে দেহ দুটি কিছুটা দূরে আগাছার মধ্যে আটকেছিল।