close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

দশমীর রাতে মদ্যপান করে বাড়িতে ঢোকে ভাই, নৃশংসতার নজির গড়ল দুই দাদা

কেলেনই গ্রামে দুই দাদা ও পরিবারের সঙ্গে থাকত বিকাশ সরকার। পেশায় দিনমজুর বিকাশের মদ্যপান করে বাড়িতে ঢুকে অশান্তি করা ছিল নিত্য দিনের ঘটনা। 

Updated: Oct 20, 2018, 12:51 PM IST
দশমীর রাতে মদ্যপান করে বাড়িতে ঢোকে ভাই, নৃশংসতার  নজির গড়ল দুই দাদা

 নিজস্ব প্রতিবেদন:  প্রায় প্রতিদিনই মদ্যপান করত ভাই। বারণ করেছিলেন দাদারা। কথা শোনা তো দূরের কথা, পুজোর ক’দিনই আরও বাড়িয়ে দিয়েছিল নেশা। মত্ত অবস্থায় বাড়িতে এসে অশান্তি করত ভাই। ভাইয়ের অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে তাকে  পিটিয়ে খুন করলেন দাদা। শুধু তাই নয়, খুনের পর প্রমাণ লোপাট করতে শরীরে ধরিয়ে দেওয়া হল আগুন। পুলিস গিয়ে রক্তাক্ত অর্ধদগ্ধ দেহ উদ্ধার করল যুবকের। নৃশংস ঘটনাটি ঘটেছে কালনার কেলেনই গ্রামে।  দুই দাদাকে গ্রেফতার করেছে পুলিস।

আরও পড়ুন: প্রেমিকের সঙ্গে দেখা করতে বেরিয়েছিল মেয়ে... উদ্ধার খুবলে খাওয়া দেহ

কেলেনই গ্রামে দুই দাদা ও পরিবারের সঙ্গে থাকত বিকাশ সরকার। পেশায় দিনমজুর বিকাশের মদ্যপান করে বাড়িতে ঢুকে অশান্তি করা ছিল নিত্য দিনের ঘটনা। ভাইয়ের সঙ্গে যে এবিষয়ে দুই দাদার প্রতিদিন ঝগড়া হত, তাও জানতেন প্রতিবেশীরা। তাই দশমীর রাতের অশান্তির আওয়াজ পেলেও প্রথমটায় বিশেষ আমল দেননি প্রতিবেশীরা।  রোজনামচার ঘটনা ভেবেই  রাতের খাওয়া খেয়ে শুয়ে পড়েছিলেন তাঁরা। প্রতিবেশীদের কথায়, কিছুক্ষণ ঝগ়ডা শব্দ ভেসে এলেও, পরে আর কোনও আওয়াজ পাননি তাঁরা। প্রতিবেশীরা ভেবেছিলেন অশান্তি থেমে গিয়েছে। কিন্তু আরও যে ভয়ঙ্কর ঘটনা ঘটে গেছে এরই মধ্যে, তাঁরা আঁচ করতে পারেননি।

আরও পড়ুন: ১০০ টাকার পেট্রোল কিনলে ফেরত পাবেন ৪০ টাকা ৭৫ পয়সা!

বিকট  চামড়া পোড়া গন্ধ পেয়ে টনক নড়ে প্রতিবেশীদের। গন্ধের উত্স খুঁজে তাঁরা বিকাশ সরকারের বাড়িতে যান। কিন্তু কেউ দরজা না খোলায় বিপদ আঁচ করতে পেরে পুলিসে খবর দেন প্রতিবেশীরা।  পুলিস গিয়ে বিকাশের আধ পোড়া রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার করে। জেরায় খুনের কথা স্বীকার করেছেন বিকাশের দুই দাদা।  তাঁদেরকে গ্রেফতার করা হয়েছে।