ছেলের বাড়ি না থাকার সুযোগে রোজ সন্ধ্যায় বউমার সঙ্গে এই কাজ করতেন শ্বশুর, ছেলে ঘরে ঢুকতেই...

পুলিসের কাছে গিয়ে আত্মসমর্পণ করেন ছেলে

Updated By: Jun 29, 2018, 03:39 PM IST
ছেলের বাড়ি না থাকার সুযোগে রোজ সন্ধ্যায় বউমার সঙ্গে এই কাজ করতেন শ্বশুর, ছেলে ঘরে ঢুকতেই...

নিজস্ব প্রতিবেদন:   প্রতিদিনকার একই অশান্তি। দিনের পর দিন নিজের বাবার কাছে নিগৃহত হতে দেখেছে স্ত্রীকে। প্রহৃত হয়েছে সন্তানও। তাই মত্ত বাবার অত্যাচার সহ্য করতে না পেরেই চরম পথ বেছে নিলেন ছেলে। ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে বাবাকে খুনের অভিযোগ উঠল এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে কোচবিহারের তুফানগঞ্জের শালবাড়ি এলাকায়।

আরও পড়ুন: মামীর সঙ্গে এক বিছানায় স্বামী, এরপর  স্ত্রী যা করলেন, তার ফল মিলল বৃহ্স্পতিবার দুপুর দেড়টায়

তুফানগঞ্জের শালবাড়ি এলাকার বাসিন্দা বিশ্বনাথ বর্মন। প্রতিদিনই তিনি মদ খেয়ে বাড়িতে ফেরেন। অভিযোগ, প্রতিদিনই মদ খেয়ে বউমার ওপর অত্যাচার চালাতেন বিশ্বনাথ। বাড়ির আসবাবপত্র ভাঙচুর করতেন বলে অভিযোগ। তাঁর অত্যাচারের হাত থেকে রেহাই পেত না নাতিও। স্ত্রীয়ের উপর এই অত্যাচার অনেকদিন ধরেই মুখ বুজে সহ্য করছিলেন তাঁর ছেলে। বৃহস্পতিবার তা মাত্রা ছাড়ায়।

বৃহস্পতিবার রাতেও একই কাজ করেন বিশ্বনাথ বর্মন। কিন্তু সেইসময় ছেলে বাড়ি ফিরে আসেন। বাবার ওই রূপ দেখে মাথা ঠিক রাখতে পারেননি তিনি। হাতের সামনে থাকা ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাথাড়ি কুপোতে শুরু করেন বাবাকে। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় বিশ্বনাথ বর্মনের। এরপর পুলিসের কাছে গিয়ে আত্মসমর্পণ করেন ছেলে।