close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

রাতে ফোন পেয়ে বাড়ি থেকে বেরন যুবক, একদিন বাদে খোঁজ মেলার পর হতবাক পরিবার

একটি ফোন আসে। সেদিন রাতে বন্ধুরাই ফোন করে ডাকে রাহুলকে।

Updated: Sep 15, 2019, 11:57 AM IST
রাতে ফোন পেয়ে বাড়ি থেকে বেরন যুবক, একদিন বাদে খোঁজ মেলার পর হতবাক পরিবার

নিজস্ব প্রতিবেদন : খাল থেকে এক যুবকের রক্তাক্ত দেহ উদ্ধারকে ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়াল রাজারহাটের শীলপোতা মোড় এলাকায়। মৃতের নাম খবিরুল গাজি ওরফে রাহুল। পুলিস সূত্রে জানা গিয়েছে, নিহত যুবকের শরীরের একাধিক জায়গায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। পরিবারের তরফে দাবি করা হয়েছে,  ওই যুবককে খুন করা হয়েছে। পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে রাজারহাট থানার পুলিস।

শুক্রবার রাত থেকেই নিখোঁজ ছিলেন ওই যুবক। আজ সকালে মাঠে কাজ করতে যাওয়ার সময় খালের মধ্যে দেহটি দেখতে পান স্থানীয়রা। সঙ্গে সঙ্গেই খবর দেওয়া হয় নিউটাউন ও রাজারহাট থানায়। পুলিস দেহ উদ্ধারের পর নিহত যুবকের পরিবার দেহটি শনাক্ত করে। জানা গিয়েছে, নিহত যুবকের বাড়ি মহম্মদপুর গাজি পাড়ায়।

পরিবারের লোকেরা জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতে বাড়ি থেকে বের হন রাহুল। তাঁর একটি ফোন আসে। আর তারপরই বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান তিনি। নিউটাউনের একটি স্কুলে কর্মরত ছিলেন রাহুল। এর পাশাপাশি ছাতুর ব্যবসাও করতেন ওই যুবক। পরিজনদের অভিযোগ, সেদিন রাতে বন্ধুরাই ফোন করে ডাকে রাহুলকে। বন্ধুরাই পিটিয়ে খুন করেছে রাহুলকে। তারপর প্রমাণ লোপাটের জন্য দেহ খালে ফেলে দেয়।

আরও পড়ুন, প্রেমিকার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন! বন্ধুকে কলকাতা ঘুরিয়ে রাতে ফ্ল্যাটে আত্মঘাতী যুবক

পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিস। দেহ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট হাতে এলে তবে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে বলে মনে করছে পুলিস। স্থানীয়দের অভিযোগ, যেই এলাকা থেকে দেহটি উদ্ধার হয়েছে, সেখানে সম্প্রতি দুষ্কৃতী দৌরাত্ম্য বেড়ে গিয়েছে। এলাকায় পর্যাপ্ত আলোর অভাবেই দুষ্কৃতী তাণ্ডব বেড়ে গিয়েছে বলে অভিযোগ তাঁদের।