জোড়া বিস্ফোরণ বস্টনে, হত ৩

জোড়া বিস্ফোরণে কেপে উঠল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বস্টন। সোমবার দুপুরে পর পর দুটি বিস্ফোরণ ঘটে। বিস্ফোরণের কিছুক্ষণ আগেই শেষ হয়েছে বস্টন ম্যারাথন। ফিনিশিং লাইনের কাছেই পর পর দুটি বিস্ফোরণ ঘটে। তখনও ম্যারাথনে দৌড়চ্ছিলেন প্রতিযোগীরা। বিস্ফোরণে তিন জনের মৃত্যু হয়েছে। জখম হয়েছেন প্রায় ১৫০ জন।

Updated By: Apr 16, 2013, 09:28 AM IST

জোড়া বিস্ফোরণে কেপে উঠল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বস্টন।
সোমবার দুপুরে পর পর দুটি বিস্ফোরণ ঘটে। বিস্ফোরণের কিছুক্ষণ আগেই শেষ হয়েছে বস্টন ম্যারাথন। ফিনিশিং লাইনের কাছেই পর পর দুটি বিস্ফোরণ ঘটে। তখনও ম্যারাথনে দৌড়চ্ছিলেন প্রতিযোগীরা। বিস্ফোরণে তিন জনের মৃত্যু হয়েছে। জখম হয়েছেন প্রায় ১৫০ জন।
বিস্ফোরণের পরে গুরুতর জখম অবস্থায় রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখা যায় আহতদের। এঁদের মধ্যে কাউকে সংজ্ঞাহীন অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখা যায়। কেউবা পা হারিয়েছেন  বিস্ফোরণে। নিহতদের মধ্যে রয়েছে একটি ৮ বছরের শিশু। বোস্টন শিশু হাসপাতালে যাঁদের ভর্তি করা হয়েছে তাদের অনেকেরই বয়স ২ বছর থেকে ৯ বছরের মধ্যে।
আহতদের বস্টন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ১৭ জনের অবস্থা সঙ্কটজনক। গুরুতর আহত আরও ২৫ জন।
বিস্ফোরণের পর শহরের নিরাপত্তা কয়েকগুণ বাড়ানো হয়েছে। বস্টনের মেয়রকে সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা।
প্রথম বিস্ফোরণটি ঘটে ফোটো ব্রিজে ম্যারাথনের ফিনিশ লাইনের কাছে বয়েলস্টন স্ট্রিটে। তার পর পরেই ৯০ মিটার দূরে পরের বিস্ফোরণটি ঘটে। সঙ্গে সঙ্গে ম্যারাথন দেখতে আসা দর্শক ও অংশগ্রহণকারীরা ছত্রভঙ্গ হয়ে পড়েন।
প্রায় একই সময় ঘটনাস্থলে পৌঁছে যায় প্যারামেডিক্স এবং ন্যাশানাল গার্ডসের সদস্যরা।
গোয়েন্দারা ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার সন্দেহে জনৈক 'কৃষ্ণাঙ্গ পুরুষের' খোঁজ চালাচ্ছে। প্রথম বিস্ফোরণের ৫ মিনিট আগে কালো ব্যাকপ্যাক নিয়ে এক ব্যক্তিকে অকুস্থলে দেখা যায়। সন্দেহভাজনের উচ্চারণ ভঙ্গী বিদেশি বলে মনে করছে পুলিস।