Greece: আফগান শরণার্থী আটকাতে রাতারাতি ৪০ কিমি পাঁচিল তুলল গ্রিস

চলতি বছরের প্রথম দিকেই অবশ্য সাত হাজার আফগান শরণার্থীকে আশ্রয় দিয়েছিল গ্রিস।

Updated By: Aug 23, 2021, 04:20 PM IST
Greece: আফগান শরণার্থী আটকাতে রাতারাতি ৪০ কিমি পাঁচিল তুলল গ্রিস

নিজস্ব প্রতিবেদন: আগে আফগান শরণার্থীদের নিজেদের দেশে ঠাঁই দিলেও হঠাৎই তাঁদের প্রতি কঠোর নীতি নিল গ্রিস। রাতারাতি নিজদের দেশের সীমান্তে দেওয়াল তুলছে তারা।

আফগান শরণার্থীদের আটকাতে তুরস্ক (Turkey) সীমান্তে ইতিমধ্যেই ৪০ কিলোমিটার লম্বা প্রাচীর তুলে ফেলল গ্রিস। ইতিমধ্যেই সেখানে ১২ কিলোমিটারের মতো পাঁচিল তোলাই ছিল। গ্রিসের ধারণা, তুরস্ক হয়ে প্রচুর মানুষ আফগানিস্তান (Afghanistan) থেকে তাদের দেশে ঢোকার চেষ্টা করবেন। তাই আগেভাগেই তারা ব্যবস্থা নিতে চায়। আর সেই কারণেই এখন থেকেই সীমান্তে কড়া নজরদারি শুরু হয়েছে। তোলা হয়ে গিয়েছে প্রাচীর।

আরও পড়ুন:  Afghan Woman: মৃতদেহের সঙ্গেই যৌনাচারে মত্ত তালিবানিরা! বিস্ফোরক দাবি আফগান মহিলার

আফগান শরণার্থী (migration crisis) আটকাতে গ্রিস এই ব্যবস্থা নিলেও ইউরোপের বাকি কয়েকটি দেশ আর আমেরিকা আফগানদের সম্পর্কে অনেকটাই নরম। আমেরিকা ঘোষণা করেছিল, আফগানিস্তান থেকে মোট ১০ হাজার শরণার্থী (refugees) আমেরিকায় থাকার অনুমতি পেতে পারেন। অগ্রাধিকার তাঁরাই পাবেন, যাঁরা আফগানিস্তানে এত বছর ধরে আমেরিকান বাহিনীকে সাহায্য করেছেন। পাশাপাশি কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো আশ্বাস দিয়েছেন, তাঁরা এখনই ২০ হাজার আফগান শরণার্থীকে নিজেদের দেশে আশ্রয় দিতে প্রস্তুত। ব্রিটেনের বরিস জনসন সরকারও জানিয়েছে, তারা পাঁচ হাজার আফগান শরণার্থীকে আশ্রয় দেবেন। এ ছাড়াও ফ্রান্স, অস্ট্রিয়া, সুইডেনের মতো দেশও অল্প সংখ্যক আফগান নাগরিককে আশ্রয় দিতে প্রস্তুত বলে জানা গিয়েছে।

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের প্রথমার্ধেই সাত হাজার আফগান শরণার্থীকে আশ্রয় দিয়েছিল গ্রিস (Greece)। তবে এবারে গ্রিসের Citizens’ Protections Minister Michalis Chrisochoidis বলেছেন, ছ'বছর আগে যা হয়েছে, আমরা চাই না তার পুনরাবৃত্তি হোক। যেখানে দেওয়াল তোলা হয়েছে, সেখানে ইতিমধ্যেই দেওয়াল আছে। 

(Zee 24 Ghanta App : দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)

আরও পড়ুন: Afghanistan crisis: জঙ্গি হামলার ইঙ্গিত বাইডেনের, অবিলম্বে নাগরিকদের ফিরিয়ে আনানোর নির্দেশ প্রেসিডেন্টের