গাজা সীমান্তে ফিলিস্তিনিদের মৃত্যুমিছিল, আন্তর্জাতিক নিন্দার মুখে ইসরায়েল - মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

রাষ্ট্রসংঘের মানবাধিকার সংগঠনের মুখপাত্র জানিয়েছেন, 'যথেষ্ট হয়েছে। পরিস্থিতি চরমে পৌঁছলে তখনই কেবলমাত্র মারণাস্ত্র প্রয়োগ করা উচিত।' তাঁর দাবি, 'সীমান্তের কাছাকাছি আসা বা সীমান্ত পেরোনোর চেষ্টা করার জন্য কাউকে এভাবে মারা যেতে পারে না।'

Updated By: May 16, 2018, 03:34 PM IST
গাজা সীমান্তে ফিলিস্তিনিদের মৃত্যুমিছিল, আন্তর্জাতিক নিন্দার মুখে ইসরায়েল - মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

ওয়েব ডেস্ক: গাজা সীমান্তে ফিলিস্তিনিদের মৃত্যুমিছিলে আন্তর্জাতিক মহলের কড়া সমালোচনার মুখে ইসরায়েল ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। সোমবার থেকে গাজা সীমান্তে ইসরায়েলি প্রতিরোধের মুখে মৃত্যু হয়েছে অন্তত ৬০ জন ফিলিস্তিনির। এর পরই মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইসরায়েলের বিরুদ্ধে সরব হয়েছে বিশ্বের একাধিক দেশ। এমনকী রাষ্ট্রসংঘও।

রাষ্ট্রসংঘের মানবাধিকার সংগঠনের মুখপাত্র জানিয়েছেন, 'যথেষ্ট হয়েছে। পরিস্থিতি চরমে পৌঁছলে তখনই কেবলমাত্র মারণাস্ত্র প্রয়োগ করা উচিত।' তাঁর দাবি, 'সীমান্তের কাছাকাছি আসা বা সীমান্ত পেরোনোর চেষ্টা করার জন্য কাউকে এভাবে মারা যেতে পারে না।'

পালটা সাফাই গেয়ে নিরাপত্তা পরিষদের জরুরি বৈঠকে রাষ্ট্রসংঘে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দূত নিকি হ্যালি বলেছেন, 'গাজা সীমান্তে ফিলিস্তিনি হামলা সর্বশক্তি দিয়ে প্রতিহত করেছে ইসরায়েল।' এই বিক্ষোভের সঙ্গে তেল আভিভ থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাস জেরুসালেমে স্থানান্তরের কোনও সম্পর্ক নেই বলে দাবি করেছেন তিনি। তাঁর দাবি, ইরানের মদতে গাজা সীমান্তে হামলা করছে ফিলিস্তিনি জঙ্গি সংগঠন হামাস। হ্যালের প্রশ্ন, 'কোন রাষ্ট্র তার সীমান্তে এমন বেয়াদপি সহ্য করবে?' 

একতরফা পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ সম্ভব নয়, উত্তর কোরিয়ার ঘোষণায় অনিশ্চিত ট্রাম্প - কিম বৈঠক

তবে এত মানুষের মৃত্যুর পরও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র শোকপ্রকাশ না করায় মার্কিন অবস্থানের নিন্দা করেছে একাধিক দেশ। তবে তাতেও নিজের অবস্থানে অনড় দু'দেশই।