করোনা নিয়ে রসিকতা করবেন না, মৃত্যুর আগে আর্জি জানিয়ে গেলেন চিকিতসক

তিনি নিজেও মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হন। শেষ লড়াইয়ে আর জিততে পারেননি তিনি।

Updated By: Mar 25, 2020, 02:03 PM IST
করোনা নিয়ে রসিকতা করবেন না, মৃত্যুর আগে আর্জি জানিয়ে গেলেন চিকিতসক

নিজস্ব প্রতিবেদন— মুখে সাদা মাস্ক। হাসপাতালের বেডে শুয়ে আছেন স্বয়ং ডাক্তার। মারণ করোনাভাইরাস থাবা বসিয়েছে তাঁর শরীরে। দিনের পর দিন তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে থাকে। নিজে চিকিসক। তাই বুঝতে পেরেছিলেন, তাঁর শেষ সময় আসন্ন। তাই মৃত্যুশয্যায় বিশ্ববাসীর জন্য বার্তা দিয়ে যেতে চেয়েছিলেন তিনি। ২৬ বছর বয়সী পাকিস্তানি ডাক্তার উসামা রিয়াজ করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করেছিলেন। করোনা আক্রান্তদের চিকিতসা করার সময় তিনি নিজেও মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হন। শেষ লড়াইয়ে আর জিততে পারেননি তিনি।

জীবনের শেষ লগ্নেও দায়িত্ব সামলে গেলেন উসামা। ডাক্তার হিসাবে সারা বিশ্বকে করোনা সম্পর্কে সচেতন করে গেলেন তিনি। পাকিস্তানে উসামাই প্রথম ডাক্তার হিসাবে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন। ইরান ও ইরাক থেকে আসা করোনার আক্রান্ত রোদীগের চিকিত্সা করছিলেন তিনি। তার পর নিজেই আক্রান্ত হন। তাঁর চিকিতসা শুরু হলেও সাড় মিলছিল না। শেষমেশ জীবনযুদ্ধে হেরে যান তিনি। মৃত্যুর আগে নিজের মোবাইলে একটি ভিডিয়ো রেকর্ড করেন উসামা। সেখানেই করোনা নিয়ে সবাইকে সচেতন করে যান তিনি।

আরও পড়ুন—  জানেন এই মুহূর্তে বিশ্বের কত মানুষ 'ঘরবন্দি'? পরিসংখ্য়ান শুনলে চোখ কপালে উঠবে

উসামা বলেন, ''আজ শরীর একটু ভাল। তাই আপনাদের কয়েকটা কথা বলে যেতে চাই। আপনারা করোনা নিয়ে রসিকতা করবেন না। এটা একেবরেই রসিকতার বিষয় নয়। নিজের প্রিয়জন, পরিবারের লোক, দেশের মানুষ, সবার কথা মাতায় রাখবেন। এই ভাইরাসকে ইয়ার্কি ভেবে কোনও কাজ করবেন না। এটা খুব সিরিয়াস ব্যাপার। কত মানুষ এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। সবাই সেরে উঠবেন কি না জানি না। আপনারা সুস্থ থাকুন। সচেতন থাকুন।'' পাকিস্তানে এখনও পর্যন্ত ৮০০ লোক করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গিয়েছেন পাঁচজন। পাকিস্তানের এই ডাক্তারের ছবি এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার হচ্ছে। তাঁকে বীরের মর্যাদা দিচ্ছে মানুষ।