close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

ভোটব্যাঙ্কের স্বার্থে মূর্তির বিরোধী মমতাই, হিম্মত থাকলে সিসিটিভি ফুটেজ দেখান: যোগী

এদিন যোগী আদিত্যনাথের সভা বানচালের অভিযোগ উঠেছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে। 

Updated: May 15, 2019, 10:29 PM IST
ভোটব্যাঙ্কের স্বার্থে মূর্তির বিরোধী মমতাই, হিম্মত থাকলে সিসিটিভি ফুটেজ দেখান: যোগী

নিজস্ব প্রতিবেদন: উত্তরপ্রদেশের ৮০টি আসনের মধ্যে ৬৭টির নির্বাচন হয়ে গিয়েছে। অথচ কোথাও কোনও অশান্তির খবর আসেনি। বিজেপির রাজ্য দফতরে এমনটাই দাবি করলেন যোগী আদিত্যনাথ। 

এদিন যোগী আদিত্যনাথের সভা বানচালের অভিযোগ উঠেছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে। আদিত্যনাথ বলেন,''এটা প্রথমবার হয়নি। ভারতীয় জনতা পার্টির কর্মীদের সভা করতে বাধা দেওয়া হচ্ছে। অমিত শাহ বা অন্য নেতাদের বাংলায় কর্মসূচি করতে বাধা দিচ্ছে। রোড শোয়ের কর্মসূচিতেও একই ধরনের পরিস্থিতি ছিল''। 

যোগী আদিত্যনাথ আরও বলেন,''ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর দেশের মহাপুরুষ। বাংলা ভাষা ছাড়াও সমাজ নির্মাণে তাঁর ভূমিকা অনস্বীকার্য। ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের রাজ্যে বাংলা ভাষার স্কুল বন্ধ করে দিচ্ছেন। আমরা মূর্তিতে বিশ্বাস করি। মূর্তি পূজাতেও বিশ্বাস করি। ভোটব্যাঙ্কের জন্য মূর্তি পুজোর বিরোধ করেন মমতা। দুর্গাপুজো ও মহরম একসঙ্গে পড়েছিল, তখন মমতার সরকার দুর্গাপুজো বন্ধের চেষ্টা করেছিল। কলকাতা হাইকোর্টের হস্তক্ষেপের কারণ সফল হননি। মূর্তি ভেঙেছে তৃণমূলই''।

একইসঙ্গে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীর হুঁশিয়ারি, হিম্মত থাকলে সিসিটিভি ফুটেজ দেখান। ওইখানে কোনও বিজেপি কর্মী যেতে পারেন না। কলেজের ছাত্র যাঁদের বলছেন, তাঁরা তৃণমূলের লোক। ভারতীয় জনতা পার্টির সভা ভণ্ডুল করেছে ওরাও। গণতন্ত্রকে আঘাত করছেন মমতা। হতাশ ও নিরাশ হয়ে উঠেছেন। উত্তর কলকাতায় সভা ছিল। অনুমতি দেওয়ার পরও প্রত্যাহ্যার করেছে প্রশাসন। সভা আয়োজন করতে দিচ্ছেন না। গণতন্ত্র প্রেমী সকল নাগরিকের কাছে আবেদন করছি, টিএমসি-র গুন্ডাগিরির জবাব গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে দিন। গণতন্ত্রে কোনও পার্টির দাদাগিরি চলে না''।

বিদ্যাসাগর কলেজে ইশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙার ঘটনায় বিজেপিকে কাঠগড়ায় তুলেছে তৃণমূল। অভিযোগ অস্বীকার করে সকালেই দিল্লিকে সাংবাদিক বৈঠকে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ ছবি দেখিয়ে দাবি করেন, গেট বন্ধ ছিল। আমরা বাইরে ছিলাম। ভিতরে গিয়ে কারা ভেঙেছে? টিএমসির লোকেরাই তো ভিতর থেকে কেরোসিন বোম, ইট ছুড়ছি। সহানুভূতি কুড়োনোর জন্য ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভেঙেছে তৃণমূল। 

আরও পড়ুন- হাতে আগে থেকে চিড় ছিল, স্বীকার করলেন বিদ্যাসাগর কলেজে তৃণমূলের সেই ছাত্র নেতা