পথ দেখাচ্ছে বাংলা, মেডিক্যালের পর দ্বিতীয় করোনা হাসপাতাল রাজারহাটে

বিদেশ থেকে আসা যাত্রীদের কোয়ারান্টাইনে রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছিল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের অধীনস্থ রাজারহাটের ন্যাশনাল ক্যান্সার ইনস্টিটিউটে।  

Reported By: তন্ময় প্রামাণিক | Updated By: Mar 25, 2020, 11:46 PM IST
পথ দেখাচ্ছে বাংলা, মেডিক্যালের পর দ্বিতীয় করোনা হাসপাতাল রাজারহাটে

নিজস্ব প্রতিবেদন: কলকাতা মেডিক্যাল কলেজের পর করোনার চিকিত্সায় দ্বিতীয় হাসপাতাল হল রাজারহাটের চিত্তরঞ্জন ন্যাশনাল ক্যান্সার ইনস্টিটিউট। নভেল করোনাভাইরাসের মোকাবিলায় সব রাজ্যকে হাসপাতালের ব্যবস্থা করতে পরামর্শ দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। ইতিমধ্যেই মেডিক্যাল কলেজ হয়ে উঠেছে 'করোনা স্পেশালিটি হাসপাতাল'।                 

বিদেশ থেকে আসা যাত্রীদের কোয়ারান্টাইনে রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছিল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের অধীনস্থ রাজারহাটের ন্যাশনাল ক্যান্সার ইনস্টিটিউটে।  ওই হাসপাতালটিকে পূর্ণমাত্রার একটি হাসপাতালে রূপান্তরিত করার সিদ্ধান্ত নিল স্বাস্থ্যভবন। যাতে রোগীর সংখ্যা আচমকা বেড়ে গেলে চিকিত্সার ব্যবস্থা করা সম্ভব হয়। ইতিমধ্যেই ৫০ জন ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্য কর্মীদের পাঠানো হয়েছে ওই হাসপাতালে। রাখা হচ্ছে ৫০০টি শয্যা। কলকাতা মেডিক্যাল কলেজের পর এটিই হচ্ছে রাজ্যের ও পূর্ব ভারতের দ্বিতীয় করোনা চিকিত্সার হাসপাতাল।

ওই হাসপাতালে সুপার নিয়োগ করা হয়েছে বলে জানান রাজ্যের স্বাস্থ্য অধিকর্তা অজয় চক্রবর্তী। তিনি বলেন,''আমরা হাসপাতালটিকে করোনা হাসপাতাল হিসেবে ব্যবহার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। সেজন্য ৩০ জন নার্স, ২জন টেকনিশিয়ান, চিকিৎসক, দু'জন ডেপুটি নার্সিং সুপার,একজন নার্সিং সুপার-সহ প্রায় ৫০ জন কর্মীকে সেখানে পাঠানো হয়েছে। প্রস্তুতিতে কোনও খামতি রাখা হচ্ছে না।''

করোনার উপসর্গ থাকা ও আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য শনিবার থেকে রোগী ভর্তি শুরু হচ্ছে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজে। প্রাথমিকভাবে ৩০০ বেডের ব্যবস্থা করা হয়েছে। মেডিক্যাল কলেজের ৫ নম্বর গেটের নাম রাখা হয়েছে 'করোনা গেট'। এরপর সোমবার থেকে সিপিইউ ও ভেন্টিলেশনেও রোগী ভর্তি শুরু হয়ে যাবে। 

আরও পড়ুন- সাহায্য করুন বাংলাকে, ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট ও IFSC নম্বর ঘোষণা মমতার