শুধু Rahul নন, আরও ৫ নেতার অ্য়াকাউন্ট বন্ধ করেছে Twitter, অভিযোগ Congress-এর

তালিকায় রণদীপ সুরজেওয়ালা, অজয় মাকেনের নাম। 

Updated By: Aug 12, 2021, 09:02 AM IST
 শুধু Rahul নন, আরও ৫ নেতার অ্য়াকাউন্ট বন্ধ করেছে Twitter, অভিযোগ Congress-এর

নিজস্ব প্রতিবেদন: কেবল রাহুল গান্ধী নন, বন্ধ করা হয়েছে একাধিক শীর্ষ কংগ্রেস নেতার টুইটার অ্য়াকাউন্ট। বুধবার এমনই অভিযোগ করল কংগ্রেস। দেশের এই সবচেয়ে পুরনো রাজনৈতিক দলটির অভিযোগ, টুইটারের তরফে বন্ধ করা হয়েছে কংগ্রেসের মিডিয়া ইনচার্জ রণদীপ সুরজেওয়ালা, AICC-র সাধারণ সম্পাদক তথা প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অজয় মাকেন, লোকসভার সদস্য মণিক্কম ঠাকুর, প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জীতেন্দ্র সিং এবং মহিলা কংগ্রেসের সভানেত্রী সুস্মিতা দেবের টুইটার অ্য়াকাউন্ট।

এই অভিযোগকে হাতিয়ার করে কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদী সরকারকে আক্রমণ শানিয়েছে কংগ্রেস। তাদের অভিযোগ, কেন্দ্র কলকাঠি নাড়ায় রাহুল গান্ধী-সহ তাঁদের শীর্ষ নেতাদের টুইটার অ্যাকাউন্ট ব্লক করেছে টুইটার। কণ্ঠরোধের চেষ্টা করছে কেন্দ্র। তাঁদের দাবি, এরপরেও অন্যায়ের প্রতিবাদ করবে কংগ্রেস। বিজেপি সরকারের সমস্ত অন্যায় কাজের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে সরব হবে দল। গত বুধবার দিল্লির নির্যাতিতার পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে যান রাহুল গান্ধী। পরে টুইটারে নির্যাতিতার পরিবারের সঙ্গে ছবি পোস্ট করেন রাহুল। লেখেন, "মা-বাবার কান্না শুধু একটা কথাই বলছে - তাঁদের মেয়ে, দেশের মেয়ে ন্যায়বিচার চায়। আর এই বিচারের পথে আমি তাঁদের সঙ্গে আছি।" 

আরও পড়ুন: DRDO: দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি Cruise Missile-র সফল পরীক্ষা সেরে ফেলল ডিআরডিও

আরও পড়ুন: Hemchandra Ghosh: দেশপ্রেমে 'দীক্ষিত' হয়েছিলেন স্বয়ং স্বামীজির কাছে!

এরপরই বিজেপির মুখপাত্র সম্বিত পাত্র অভিযোগ করেন, পকসো আইনের ৭৪ নম্বর ধারা ভেঙেছেন রাহুল গান্ধী। এরপরই কংগ্রেসের তরফে অভিযোগ করা হয়, রাহুল গান্ধীর টুইটার অ্যাকাউন্টটি সাসপেন্ড করে দেওয়া হয়েছে। যদিও টুইটারের তরফে সেই অভিযোগ উড়িয়ে দেওয়ার হয়।