দক্ষিণে জোর করে হিন্দি চাপিয়ে দেওয়া হবে না, ক্ষোভের আঁচ পেয়েই আসরে কেন্দ্র

হিন্দি নিয়ে ডিএমকে নেতা স্ট্যালিন বলেন, দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত হিন্দি চাপিয়ে দেওয়ার যে চেষ্টা হচ্ছে তাতে এই দেশে ভাগাভাগি হবে। 

Updated By: Jun 2, 2019, 07:24 AM IST
দক্ষিণে জোর করে হিন্দি চাপিয়ে দেওয়া হবে না, ক্ষোভের আঁচ পেয়েই আসরে কেন্দ্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: দক্ষিণের রাজ্যগুলিতে হিন্দি ভাষা চাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে না। ‘ভাষা যুদ্ধ’ থামাতে গিয়ে শেষপর্যন্ত পিছু হঠল মোদী সরকার।

দক্ষিণের রাজ্যগুলিতে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত হিন্দি ভাষা বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে এমনটাই দাবি করে আন্দোলনের হুমকি দিতে শুরু করে দক্ষিণের দলগুলি। তারই জবাব দিল কেন্দ্র। এনিয়ে ফুঁসে ওঠেন স্ট্যালিনের মতো নেতা।

আরও পড়ুন-রাজ্য বিজেপিতে কোণে দাঁড়ানো চিনুই আজ কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী দেবশ্রী   

উল্লেখ্য, গত সপ্তাহে কেন্দ্রের কাছে নয়া শিক্ষা নীতির খসড়া তুলে দেয় কস্তুরীরঙ্গনের নেতৃত্বে একটি কমিটি। সেখানে অষ্টমশ্রেণি পর্যন্ত হিন্দি বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। এতেই তেতে উঠেছে তামিলনাড়ু। এছাড়া অ-হিন্দিভাষী বেশ কিছু সংগঠন এতে প্রতিবাদ করে।

এদিকে, বিষয়টি জটিল হচ্ছে টের পেয়ে শনিবার আসরে নামলেন কেন্দ্রীয় মানব সম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রী রমেশ পোখরিওয়াল। তিনি বলেন, কোনও ভাষা কারও ওপরে চাপিয়ে দেওয়া হবে না। এখটি খসড়া জমা পড়েছে মাত্র। তা মন্ত্রিসভায় যাবে। হিন্দি নিয়ে কোনও বিতর্ক নেই।

অন্যদিকে, কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী বিবৃতি দেন, একটি প্রস্তাব জমা পড়েছে মাত্র। সরকার এনিয়ে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি। ফলে হিন্দি নিয়ে একটা ভুল বোঝাবুঝি শুরু হয়েছে। ওই রিপোর্ট নিয়ে এখনও কোনও পর্যালোচনাই করেনি সরকার।

আরও পড়ুন-'গায়ে হাত পড়লে ব্যারাকপুর নন্দীগ্রাম হয়ে যেতে পারে!' থানায় দাঁড়িয়ে হুঙ্কার অর্জুনের

হিন্দি নিয়ে ডিএমকে নেতা স্ট্যালিন বলেন, দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত হিন্দি চাপিয়ে দেওয়ার যে চেষ্টা হচ্ছে তাতে এই দেশে ভাগাভাগি হবে। হিন্দি চাপিয়ে দেওয়ার কোনও চেষ্টা ডিএমকে মেনে নেবে না। কেন্দ্রে বিজেপি সরকার আশাকরি ফের একটি ভাষা বিক্ষোভের দিকে রাজ্যকে ঠেলে দেবে না।