১২০ কোটি টাকা জরিমানা, না দিলে বন্ধ হতে পারে ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম!

১৯৭৫ সালে ভারতীয় ক্রিকেটের স্বনামধন্য পরিচালক ও রাজনীতিবিদ এসকে ওয়াংখেড়ে মুম্বই শহরের বিখ্যাত এই স্টেডিয়ামটি নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছিলেন। 

Updated By: Apr 23, 2019, 12:43 PM IST
১২০ কোটি টাকা জরিমানা, না দিলে বন্ধ হতে পারে ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম!

নিজস্ব প্রতিবেদন : একটা দুটো টাকা নয়। ১২০ কোটি টাকা। জরিমানা অনাদায়ে মুম্বই হারাতে পারে ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম। সেই ওয়াংখেড়ে, যেখানে ধোনির নেতৃত্বাধীন ভারতীয় দল বিশ্বকাপ জিতেছিল। মুম্বই শহরের সঙ্গে অঙ্গাআঙ্গিভাবে জড়িত এই স্টেডিয়ামে অবৈধ নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে। যার জেরে মুম্বই ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনকে ১২০ কোটি টাকা জরিমানা করেছে মহারাষ্ট্র সরকার। না হলে স্টেডিয়াম বন্ধের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন-  IPL 2019, RRvDC: রাহানের শতরানে রক্ষে নেই, ঋষভ পন্থের ঝোড়ো ব্যাটিংয়ে জয় দিল্লির

১৯৭৫ সালে ভারতীয় ক্রিকেটের স্বনামধন্য পরিচালক ও রাজনীতিবিদ এসকে ওয়াংখেড়ে মুম্বই শহরের বিখ্যাত এই স্টেডিয়ামটি নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছিলেন। সেই সময় মুম্বই ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন-এর নিজস্ব একটি ভেন্যু করার পরিকল্পনা থেকেই এই স্টেডিয়াম তৈরি করা হয়েছিল। ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম যে জায়গায় তৈরি সেই সেটি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে ৫০ বছরের জন্য ইজারা নিয়েছিল এমসিএ। সেই চুক্তি শেষ হয়েছে ২০১৮ সালে। এর পর স্টেডিয়াম তৈরির জায়গায় ফের অবৈধভাবে একটি ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। সেটি বিসিসিআই-এর সদর দপ্তর।

আরও পড়ুন-  ICC World Cup 2019: আফগানিস্তানের বিশ্বকাপ দলে হামিদ হাসান, গুলবাদিনের ডেপুটি রশিদ খান

চুক্তি পুনর্নবীকরণ করা হয়নি। এছাড়া সঠিকভাবে কর দেওয়া হয়নি বলে এমসিএ-এর বিরুদ্ধে অভিযোগ। তার উপর অবৈধভাবে স্টেডিয়াম সংস্কারের অভিযোগও রয়েছে। মহারাষ্ট্রের সরকারের তরফে এমসিএ-কে পরিষ্কার জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, ''জরিমানার টাকা শোধ করতে না পারলে ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম বন্ধ করে দিতে হবে। সংশ্লিষ্ট দফতরের এক কর্তা জানিয়েছেন, এমসিএ চুক্তি বাড়ানোর আবেদন করেছে। কিন্তু আগের ওদের বাজারদর মেনে বকেয়া সব পাওনা পরিশোধ করতে হবে। বিসিসিআই-এর সদর দপ্তর তৈরির অনুমতি ছিল কিনা সেটাও আমরা খতিয়ে দেখছি।'' যদিও এমসিএ-র তরফে জানানো হয়েছে, তারা এই ব্যাপারে অবগত ছিলেন না।