লকডাউনের বাজারে দোকান খুলতে মানা, দাদাকে 'ঘরবন্দি' করলেন ভাই!

অগত্যা চার ঘণ্টা পর পুলিস গিয়ে তাঁদের উদ্ধার করে। লকডাউনের বাজারে চাঞ্চল্যকর ঘটনা চন্দননগরের বারাসতে।  

Updated By: Apr 4, 2020, 10:42 AM IST
লকডাউনের বাজারে দোকান খুলতে মানা, দাদাকে 'ঘরবন্দি' করলেন ভাই!

নিজস্ব প্রতিবেদন: লকডাউনেও বই খাতার দোকান খুলছিলেন ভাই। করোনা সংক্রমণের আশঙ্কায় ভাইকে বারবার দোকান খুলতে বারণ করেছিলেন দাদা। কিন্তু সেকথা কানে তোলেননি ভাই। দোকান গিয়ে বন্ধ করে দেয় পুলিস। কিন্তু রাগ গিয়ে পড়ে দাদার ওপর। দাদার বাড়ি গিয়ে বাইরে থেকে দরজায় তালা দিয়ে চলে যান ভাই। অগত্যা চার ঘণ্টা পর পুলিস গিয়ে তাঁদের উদ্ধার করে। লকডাউনের বাজারে চাঞ্চল্যকর ঘটনা চন্দননগরের বারাসতে।  
গৌর দে-র একটি বই খাতার দোকান রয়েছে। বাজার, মুদি খানার দোকান ছাড়া যেখানে প্রশাসন সব দোকানই বন্ধ রাখতে নির্দেশ দিয়েছে, সেখানেও গৌর তাঁর দোকান খুলছিলেন। তাঁকে বারবার বারণ করেছিলেন দাদা শ্যামল দে। 

'নিজামউদ্দিনের ওরা এক-একজন মানববোমা... ভোটের রাজনীতি করছেন মুখ্যমন্ত্রী'
খবর পেয়ে শুক্রবার গৌর দের দোকানে হানা দেয় পুলিস। দোকান বন্ধ করে দেয় প্রশাসন। কিন্তু গৌর মনে করেন, তাঁর দাদাই পুলিসের কাছে অভিযোগ জানিয়েছিলেন। কেবল ধারণা থেকেই দাদার বাড়িতে চড়াও হন গৌর। দাদা ও তাঁর পরিবারের প্রত্যেক সদস্যকে বাড়িতে ঢুকিয়ে বাইরে থেকে তালা দিয়ে চলে যান। প্রায় চার ঘণ্টা আটকে থাকে শ্যামল দে-র পরিবার। পরে পুলিস গিয়ে তাঁদের উদ্ধার করেন। ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত। তাঁর খোঁজে তল্লাশি চলছে।