নেতাজীর জন্মজয়ন্তী অনুষ্ঠানে জয় শ্রী রাম ধ্বনির প্রতিবাদ, গড়িয়াহাটে ধরনায় কবীর সুমন

সঙ্গে রয়েছেন দেবলীনা এবং সায়নীও। 

Updated By: Jan 24, 2021, 01:36 PM IST
নেতাজীর জন্মজয়ন্তী অনুষ্ঠানে জয় শ্রী রাম ধ্বনির প্রতিবাদ, গড়িয়াহাটে ধরনায় কবীর সুমন

নিজস্ব প্রতিবেদন: নেতাজীর জন্মজয়ন্তী অনুষ্ঠানে জয় শ্রী রাম ধ্বনির প্রতিবাদ, গড়িয়াহাটে ধরনায় কবীর সুমন। সঙ্গে রয়েছেন দেবলীনা এবং সায়নীও। 

গতকাল সারাদিনই সরগরম ছিল রাজনৈতিক ময়দান। উপলক্ষ্য নেতাজি (Netaji) জন্মজয়ন্তী। বিকেলে ভিক্টোরিয়ার অনুষ্ঠানেও শোরগোল বাঁধে। ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল নেতাজি জন্মজয়ন্তী অনুষ্ঠান শুরুর প্রারম্ভে 'একফ্রেমে মোদী-মমতা', যে সৌহার্দ্যের ছবি ধরা পড়েছিল, তার তাল কাটল অচিরেই।  মুখ্যমন্ত্রী। কোনও বক্তব্য না রেখেই আসনে ফিরে গেলেন 'অপমানিত' মুখ্যমন্ত্রী (Mamata Banerjee)। 

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে নেতাজি (Netaji) জন্মজয়ন্তী উপলক্ষে এক বর্ণাঢ্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। পাশাপাশি বসেই সেই অনুষ্ঠান উপভোগ করতে দেখা যায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra Modi), মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee), রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কে (Jagdeep Dhankhar)। অনুষ্ঠান শেষে প্রথমে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় সংস্কৃতিমন্ত্রী প্রহ্লাদ পাটেল। তাঁর বক্তব্যের পরই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বক্তব্য রাখার জন্য মঞ্চে আহ্বান জানান সঞ্চালক জুটি। এরপরই ঘটে ছন্দপতন। 

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) বক্তব্য রাখার জন্য বলতে উঠতেই 'জয় শ্রী রাম' (Jai Shri Ram) ধ্বনি ওঠে দর্শকাসন থেকে। 'জয় শ্রী রাম' স্লোগানে ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী এরপর মঞ্চেই সরাসরি তোপ দাগেন। তিনি বলেন,"সরকারি অনুষ্ঠানের ডিগনিটি থাকা উচিত। এটা কোনও রাজনৈতিক অনুষ্ঠান নয়। আমাকে আমন্ত্রণ করায় প্রধানমন্ত্রী ও সংস্কৃতিমন্ত্রীর কাছে কৃতজ্ঞ। কিন্তু কাউকে আমন্ত্রণ করে, তারপর অপমান করা উচিত নয়। তাই প্রতিবাদ স্বরূপ আমি কিছু বলছি না।" ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী এরপরই আর কোনও বক্তব্য না রেখে নিজের আসনে ফিরে যান।

Tags: