''বিজেপিতে আসুন, স্বাগত!'' শুভেন্দু অধিকারীকে খোলামেলা প্রস্তাব সৌমিত্র খাঁর

নন্দীগ্রামের সভায় রাজ্যের মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী বিস্ফোরক মন্তব্য করার পরের দিনই তাঁকে বিজেপিতে আহ্বান জানালেন বিজেপির রাজ্য যুব মোর্চার সভাপতি তথা সাংসদ সৌমিত্র খাঁ।

Updated By: Nov 1, 2020, 01:23 PM IST
''বিজেপিতে আসুন, স্বাগত!'' শুভেন্দু অধিকারীকে খোলামেলা প্রস্তাব সৌমিত্র খাঁর

নিজস্ব প্রতিবেদন- তৃণমূল ও শুভেন্দু অধিকারীর মধ্যে দূরত্ব তৈরি হয়েছে। এমনই চাপা গুঞ্জন চলছে।আর এমন পরিস্থিতির সুযোগ নিতে চাইছে বিজেপি শিবির। নন্দীগ্রামের মঞ্চ থেকে শুভেন্দু অধিকারীর বিস্ফোরক মন্তব্যের পরই বিজেপি শিবির নড়েচড়ে বসেছে। নন্দীগ্রামে শুভেন্দু অধিকারীর বক্তব্যের ঠিক পরদিনই তাঁকে গেরুয়া শিবিরে আহ্বান জানালেন যুব মোর্চার সভাপতি সৌমিত্র খাঁ।

নন্দীগ্রামের সভায় রাজ্যের মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী বিস্ফোরক মন্তব্য করার পরের দিনই তাঁকে বিজেপিতে আহ্বান জানালেন বিজেপির রাজ্য যুব মোর্চার সভাপতি তথা সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। আর তাতে এখন বাংলার রাজনীতি মহলে গুঞ্জন। তা হলে কি সত্যিই বিজেপিতে যোগ দেবেন শুভেন্দু! সত্যিই কি তাঁর সঙ্গে তৃণমূলের দূরত্ব বাড়ছে! না হলে নন্দীগ্রামের মঞ্চ থেকে ওরকম চাচাছোলা ভাষায় কাকে আক্রমণ করলেন তিনি! রবিবার সকালে বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুরে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অরবিন্দ মেননকে সঙ্গে নিয়ে ছিন্নমস্তা মন্দিরে পুজো দেন সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। পুজো দেওয়ার পর যুব মোর্চার সভাপতি সৌমিত্র খাঁ বললেন, ''রাজ্যের মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী বলতে চাইছেন বাংলার স্বার্থে সরকার পরিবর্তন করা দরকার। শুভেন্দু অধিকারী মানুষের জন্য কাজ করতে চান। তাই আমরা চাই তিনি কালবিলম্ব না করে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিন।'' 

আরও পড়ুন-  বাঁধ ভেঙে জলশূন্য দুর্গাপুর ব্যারেজ! প্রভাব পড়তে চলেছে তাপ বিদ্যুৎ উৎপাদনে

শনিবার নন্দীগ্রামের সভা থেকে শুভেন্দু বলেছিলেন, 'প্যারাস্যুটে নামিনি। লিফটে উঠিনি। সিঁড়ি ভেঙে উঠেছি। আমরা সবাই লড়াই করে এসেছি। ছোটলোকদের নিয়ে কথা বললে আমি তার উত্তর দিই না। আশ্চর্য হয়ে যাচ্ছি, কেউ কেউ অতীত ভুলে যায়। ধৈর্য্য ও সহ্য ক্ষমতা রয়েছে আমার।'' এর পর থেকেই রাজ্যের রাজনীতিতে শুভেনদুর অবস্থান নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে।