গৃহবধূকে বিষ খাইয়ে খুনের অভিযোগ! পলাতক শ্বশুর বাড়ির সদস্যরা

মৃত্যু ঘিরে উঠছে নানা প্রশ্ন। 

Updated By: Jun 20, 2021, 09:25 PM IST
গৃহবধূকে বিষ খাইয়ে খুনের অভিযোগ! পলাতক শ্বশুর বাড়ির সদস্যরা

নিজস্ব প্রতিবেদন: গৃহবধূর মৃত্যু ঘিরে ফের চাঞ্চল্য দাসপুরে। বিষ খাইয়ে খুনের অভিযোগ উঠল স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে। ধরমপুরের তপন সাঁতরার স্ত্রী গীতা সাঁতরার মৃত্যু নিয়ে নানা প্রশ্ন উঠছে। 

মৃতের পরিবারের অভিযোগ, ময়নাতদন্তের পর দেহ শ্বশুরবাড়ির সামনে ফেলে পালায় স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির সদস্যরা। রাতভর শ্বশুর বাড়ির দরজার সামনে মৃতদেহ পড়ে থাকার পর, অবশেষে দাসপুর পুলিশের হস্তক্ষেপে গীতা সাঁতরার মৃতদেহ পোড়ানো হয়।

আরও পড়ুন: আলিপুরদুয়ার জেলা BJP-তে ভাঙনের ভ্রূকুটি, তৃণমূলে যোগ দিচ্ছেন খোদ জেলা সভাপতি!

শুক্রবার চিকিৎসারত অবস্থায় মৃত্যু হয় গীতা সাঁতরা নামের ওই গৃহবধুর। মৃতদেহের ময়না তদন্তের পর ১৯ জুন সন্ধ্যায় দেহ এসে পৌঁছায় দাসপুরের ধরমপুরে গীতার শ্বশুর বাড়িতে। যদিও শ্বশুর বাড়ির সবাই পলাতক থাকে। মৃতের বাপের বাড়ির অভিযোগ ছিল মেয়ের উপর অত্যাচার করে তাকে বিষ খাইয়ে মেরে ফেলা হয়েছে। আর সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই দাসপুর পুলিশ শ্বশুরবাড়ির পরিবারের এক সদস্যকে গ্রেফতার করেছে।

আরও পড়ুন: দ্বন্দ্ব ভুলে কাছাকাছি অনুব্রত-শতাব্দী, প্রায় ৩ বছর পর একসঙ্গে করলেন মিটিং

শনিবার সন্ধ্যায় দেহ এসে পৌঁছলে মৃতের বাপের বাড়ি দাসপুরের রাজনগর থেকে ভাই-সহ গ্রামের অন্যান্যরা গিয়ে মৃতদেহকে তার শ্বশুরবাড়ির দরজার সামনে ফেলে রাখেন। মৃতের দুই নাবালিকা সন্তানের ভবিষ্যতের ব্যবস্থা করতে হবে এই দাবি তোলা হয়। অন্যদিকে, গ্রামবাসীরাও জানান পরবর্তীতে মা হারা দুই নাবালিকা যাতে তার পিতৃ সম্পত্তিতে থেকে বঞ্চিত না হয় সে দিকে নজর রাখবে।