এই প্রথম প্রকাশ্যে এল Covid-19 ভাইরাসের মিউটেশনের Molecular Image, দিশা মিলছে সংক্রমণের

B.1.1.7 variant-টি প্রথমে ব্রিটেনে, পরে কানাডায় পাওয়া যায়।

Updated By: May 4, 2021, 04:24 PM IST
এই প্রথম প্রকাশ্যে এল Covid-19 ভাইরাসের মিউটেশনের Molecular Image, দিশা মিলছে সংক্রমণের

নিজস্ব প্রতিবেদন: কেন এই নতুন কোভিড ভাইরাস আগের ভাইরাসটির চেয়ে এত  বেশি সংক্রামক, তা নিয়ে বিজ্ঞানীমহলে বিস্তর প্রশ্ন ছিল। এবার  সম্ভবত তার উত্তর মিলতে চলেছে।

কানাডার গবেষকেরা (canadian researchers) কোভিড ভাইরাসের মিউটেশনের একটি ছবি প্রকাশ করেছেন। কোভিড-১৯ ভাইরাসের B.1.1.7 variant-এর গঠনমূলক ছবি এই প্রথম প্রকাশ্যে এল। এই গঠনতন্ত্র থেকে এর সংক্রমণশক্তির একটা ব্যাখ্যা মিলতে পারে বলে মত বিজ্ঞানীদের। UK, India এবং Canada-য় এই নতুন  স্ট্রেনের সাঙ্ঘাতিক প্রকোপে কাহিল জনজীবন।

আরও পড়ুন: মাটির নীচ থেকে দুধের বোতল টেনে তুলতেই বেরোল ধোঁয়া!

গত বছর ডিসেম্বরের মাঝামাঝি World Health Organization এই B.1.1.7 variant-এর কথা প্রথম জানায়। তারা বলেছিল,  এই ধরনটি অস্বাভাবিক দ্রুত গতিতে মিউটেশন ঘটায়। 

কী ভাবে? তার একটা ব্যাখ্যা দিচ্ছেন Dr Sriram Subramaniam। ইনি University of British Columbia (UBC)-র biochemistry and molecular biology বিভাগের সঙ্গে যুক্ত। বিজ্ঞানী, গবেষক, অধ্যাপক Subramaniam জানান, এই ছবিটি অ্যাটমিক রেজলিউশনের কাছাকাছি। ছবি থেকে তিনি জানান, ভাইরাসের স্পাইক-প্রোটিনে N501Y নামক মিউটেশনের একটি ধরন দেখা গিয়েছে। এই স্পাইক আসলে করোনা সংক্রমণ-কালে মানুষের শরীরের কোষের সঙ্গে যুক্ত করে ভাইরাসটিকে। যুক্ত থাকা কালে যে মিউটেশনের মধ্যে দিয়ে যায় ভাইরাসটি, এই ছবিটি সেই বিষয়য়টিকেই তুলে ধরে। তিনি জানাচ্ছেন, এই N501Y mutation হল B.1.1.7 variant-এর একমাত্র মিউটেশন। যেটা করোনা ভাইরাসের স্পাইকে হয়।

প্রসঙ্গত, এই B.1.1.7 variant প্রথম ধরা পড়ে UK-তে এবং পরে তা Canada-তেও ছড়িয়ে পড়ে।

আরও পড়ুন: শিং ছিল কুমিরেরও! এবার স্বীকার বিজ্ঞানীদের!