জুনিয়র মহিলা ভলিবল খেলোয়াড়ের শিরশ্ছেদ কি করেছে তালিবান? জেনে নিন প্রকৃত তথ্য

মাহজাবিন কাবুল পৌরসভা ভলিবল ক্লাবের হয়ে খেলেছিলেন।

Updated By: Oct 29, 2021, 09:40 AM IST
জুনিয়র মহিলা ভলিবল খেলোয়াড়ের শিরশ্ছেদ কি করেছে তালিবান? জেনে নিন প্রকৃত তথ্য
প্রতীকী ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদন: একটি মর্মান্তিক ঘটনায় তালেবান জঙ্গিরা আফগান জুনিয়র মহিলা জাতীয় ভলিবল দলের একজন সদস্যের শিরশ্ছেদ করেছে বলে দলের কোচ জানিয়েছেন। কিন্তু ওই খবর অসত্য। তথ্য যাচাই ওয়েবসাইটের এমনটাই দাবি।         

মহিলা ভলিবল খেলোয়াড়ের কোচ জানিয়েছিলেন, মাহজাবিন হাকিমি নামে এক মহিলা খেলোয়াড়কে অক্টোবরের শুরুতে তালিবানরা হত্যা করেছে, কিন্তু হত্যার বিষয়ে কেউ জানতে পারেনি কারণ জঙ্গিরা তার পরিবারকে বিষয়টি প্রকাশ না করার জন্য হুমকি দিয়েছে।

আরও পড়ুন: Man Swallows Mobile: পেটের যন্ত্রণায় কাতর রোগী, অপারেশন করতেই বের হল আস্ত মোবাইল! 

উল্লেখযোগ্যভাবে, আফগানিস্তান সরকার তালিবানদের দখলে যাওয়ার আগে মাহজাবিন কাবুল পৌরসভা ভলিবল ক্লাবের হয়ে খেলেছিলেন। তিনি ক্লাবের অন্যতম তারকা খেলোয়াড় ছিলেন। কিছু দিন আগে, তার বিচ্ছিন্ন মাথা এবং রক্তাক্ত ঘাড়ের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশিত হয়েছিল। 

আরও পড়ুন: Bangladesh: বাংলাদেশ ISKCON-এর ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট বন্ধ, বিশ্বজুড়ে কীর্তন প্রতিবাদের ডাক সংগঠনের

দলের কোচ আরও জানিয়েছিলেন যে অগাস্টে তালিবানরা আফগানিস্তান দখল করার আগে দলের খেলোয়াড়দের মধ্যে মাত্র দুইজন দেশ ছেড়ে পালাতে সক্ষম হয়েছিল। তিনি বলেন, মাহজাবিন হাকিমি অন্যান্য অনেক নারী ক্রীড়াবিদদের মধ্যে একজন ছিলেন, যারা দেশ ছেড়ে যেতে পারেননি এবং তালিবানের রোষানলে পরেন। 

দলের কোচ আরও দাবি করেছিলেন যে তালিবান দেশ দখলের সময় থেকে জঙ্গিরা নারী ক্রীড়াবিদদের শনাক্ত করে হত্যার করার চেষ্টা করছে। তিনি আরও দাবি করেন যে জঙ্গিরা আফগান মহিলা ভলিবল দলের সদস্য যারা বিদেশী এবং দেশীয় প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিল এবং অতীতে মিডিয়া প্রোগ্রামে উপস্থিত হয়েছিল তাদের খুঁজছে।

যদিও তথ্য যাচাইকারী সংস্থা ফ্যাক্টওয়াচের অনুসন্ধানে দেখা যাচ্ছে, এই দাবি সত্য নয়। মাহজাবিন হাকিমি নামে এক মহিলা খেলোয়াড় নিহত হয়েছিলেন গত অগাস্ট মাসে। যার মৃত্যুর সঙ্গে তালিবানের কোনও সম্পর্ক ছিল না। 

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)