বন্ধুর সঙ্গে 'পরকীয়া' স্ত্রীর? সন্দেহেই বেহালায় মদের আসরে খুন যুবক

শুভ মাঝে মধ্যেই ফোন করত তাঁর স্ত্রীকে।

Updated By: Jan 25, 2019, 12:14 PM IST
বন্ধুর সঙ্গে 'পরকীয়া' স্ত্রীর? সন্দেহেই বেহালায় মদের আসরে খুন যুবক

নিজস্ব প্রতিবেদন : স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক, সেই সন্দেহেই মদের আসরে খুন বন্ধুকে। বেহালায় মদের আসরে যুবক খুনের ঘটনায় উঠে আসছে এই চাঞ্চল্যকর তথ্য।

বেহালা খুনের ঘটনায় মূল অভিযুক্ত রাকেশ সর্দারকে আগেই গ্রেফতার করেছে পুলিস। এবার ওই সময় ঘটনাস্থলে উপস্থিত থাকা আরও ৩ জনকে আটক করল বেহালা থানা। ধৃতদের জেরা করে জানা গিয়েছে, চণ্ডীতলায় যেখানে খুন হয় ট্রাকচালক শুভ দাস, সেখানে মাঝে মধ্যেই মদের আসর বসত। জুয়ো খেলা হত।  পরশু রাতে সেই জুয়ো খেলায় প্রচুর টাকা জিতেছিল শুভ দাস। বাকিরা খেলায় হেরে যায়। এই নিয়েই মূলত গন্ডগোল বাধে।

আরও পড়ুন, চাদর জড়াতেই আস্ত মানুষটাকে টেনে নিল মেশিন, মৃত্যু প্রৌঢ়ের

এর মধ্যেই আচমকা শুভ নেশার ঘরে অভিযুক্ত রাকেশের স্ত্রীর সম্পর্কে কুরুচিকর মন্তব্য করেন বলে অভিযোগ। জেরায় রাকেশ দাবি করেছে, শুভ মাঝে মধ্যেই ফোন করত তাঁর স্ত্রীকে। তাঁর স্ত্রীর সঙ্গে শুভ দাসের সম্পর্ক রয়েছে বলে সন্দেহ ছিল তাঁর। এরপর  ওই রাতে জুয়োতে হেরে যাওয়া ও  তারপর কুরুচিকর মন্তব্য শুনেই রাগের মাথায় সে খুন করে শুভ দাসকে।

আরও পড়ুন, রাস্তায় পড়ে বোমা, রাতভর দুষ্কৃতী তাণ্ডব সবংয়ে

স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, শুভ দাসকে যেখানে খুন  করা হয়, প্রত্যেকদিন সেখানে মদ, গাঁজা আর জুয়ার আসর বসত। বাইরে থেকেও প্রচুর গাড়ি আসত আসরে। বহিরাগত এসে ভিড় জমাত। মদের ফোয়ারা ছুটত। ঘটনার দিনও ৪ জন যুবক রাস্তায় বসে মদ্যপান করে। তারপরই বচসা চলাকালীন এই ঘটনা।

আরও পড়ুন, বীরভূমে মুখোমুখি ২ লরির সংঘর্ষ, এখনও পর্যন্ত মৃত ৬

বুধবার রাতে বেহালায় মদের আসরে খুন হন পেশায় ট্রাকচালক যুবক শুভ দাস। চণ্ডিতলা মেন রোডের বাসিন্দা ছিলেন শুভ। অভিযোগ, বচসা চলাকালীন শুভ দাসের মাথায় ইট দিয়ে আঘাত করা হয়। আঘাতের চোটে জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন শুভ দাস। সঙ্গে সঙ্গেই তাঁকে এম আর বাঙুর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই শুভ দাসকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিত্সকেরা।