Jammu & Kashmir: সন্ত্রাসযোগের অভিযোগে পদচ্যুত ৬ সরকারি কর্মচারী

তাদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদীদের সাহায্য করার অভিযোগ রয়েছে।

Updated By: Sep 22, 2021, 06:32 PM IST
Jammu & Kashmir: সন্ত্রাসযোগের অভিযোগে পদচ্যুত ৬ সরকারি কর্মচারী

নিজস্ব প্রতিবেদন: জম্মু ও কাশ্মীর সরকারের ৬ জন কর্মচারীকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এদের মধ্যে ২ জন পুলিস কনস্টেবল। তাদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদীদের সাহায্য করার অভিযোগ রয়েছে। 

জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসনের একটি মনোনীত কমিটি যারা সংবিধানের অনুচ্ছেদ ৩১১ (২)(c) এর অধীনে এই বরখাস্তের সুপারিশ অনুমোদন করেছে।এই ধারায় বলা হয় রাষ্ট্রপতি বা গভর্নর যদি মনে করেন রাজ্যের নিরাপত্তার স্বার্থে এই ধরনের তদন্ত করা সমীচীন নয়। এই ৬ জনের মধ্যে Abdul Wani একজন শিক্ষক ছিলেন। আধিকারিকরা জানিয়েছেন সরকারি চাকরিতে যোগদানের আগে Allah Tigers নাম এক অধুনা নিষ্ক্রিয় জঙ্গি সংগঠনের জেলা কমান্ডার ছিলেন। Wani-র বিরুদ্ধে অভিযোগ, সন্ত্রাসবাদী Burhan Wani-র মৃত্যুর পরে উপত্যকায় অসন্তোষ সৃষ্টিতে তার হাত ছিল। 

পুলিস কনস্টেবল Jaffer Hussain Butt-এর বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে Hizbul Mujahideen জঙ্গিদের গাড়ি সরবরাহ করে তাদের পালতে সাহায্য করার। বর্তমানে জামিনে মুক্ত রয়েছেন Butt।

জুনিয়র অ্যাসিস্ট্যান্ট Mohd Rafi Butt-এর বিরুদ্ধে Hizbul Mujahideen-কে লজিস্টিক সাপোর্ট দেয়ার অভিযোগ রয়েছে। সন্ত্রাসবাদীদের বিভিন্ন পরিকল্পনা সফলভাবে কার্যকর করার ক্ষেত্রে তিনি সহযোগিতা করেছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে। 

আরও পড়ুন: NDA exam for women: দেরি নয়, নির্দিষ্ট সময়েই NDA পরীক্ষায় বসতে পারবেন মহিলারা, নির্দেশ শীর্ষ আদালতের 

উত্তর খামিরের বারামুলার বাসিন্দা Liyaqat Ali Kakroo ১৯৮৩ সাল থেকে শিক্ষকতা করছেন। ২০০১ সালে তাকে গ্রেফতার করা হয়। অভিযোগ করা হয় তিনি স্থানীয়ভাবে প্রশিক্ষিত সন্ত্রাসবাদী। তার কাছ থেকে বিস্ফোরক পদার্থ উদ্ধার করা হয়। তাকে PSA আইনে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। ২০০২ সালে তিনি ছাড়া পান। 

কাশ্মীরের পুঞ্চ জেলার Tariq Mehmood Kohli বনদপ্তরে রেঞ্জ অফিসার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। পাকিস্তান থেকে অবৈধ অস্ত্র, গোলাবারুদ, বিস্ফোরক দ্রব্য সহ হার্ড ড্রাগ এবং জাল ভারতীয় নোট (FICN) পাচারের অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে। তার বিরুদ্ধে সক্রিয় সন্ত্রাসবাদীদের সঙ্গে যোগাযোগের অভিযোগ রয়েছে। 

মধ্য কাশ্মীরের বাদগাম জেলার পুলিশ কনস্টেবল Showkat Ahmad Khan-এর বিরুদ্ধে MLC-র বাড়ি থেকে আগ্নেয়াস্ত্র লুটের অভিযোগ রয়েছে। তাকেও PSA আইনে ২০১৯ সালে গ্রেফতার করা হয়। 

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)