মানুষকে খাঁচাবন্দি করে কার্ফু তুলে নেওয়ার অর্থ কী! জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসনকে বিঁধলেন মেহবুবা

বুধবার জম্মু ও কাশ্মীরের বিভিন্ন জায়গায় ৫ অগাস্ট ৩৭০ ধারা রদের দিনটি উদযাপন করেছে বিজেপি

Edited By: সিকান্দর আবু জ়াফর | Updated By: Aug 5, 2020, 05:50 PM IST
মানুষকে খাঁচাবন্দি করে কার্ফু তুলে নেওয়ার অর্থ কী! জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসনকে বিঁধলেন মেহবুবা
ছবি-টুইটার

নিজস্ব প্রতিবেদন: বুধবার ৫ অগাস্ট জম্মু ও কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা রদের দিনটিতে গোলমালের আশঙ্কা ছিল। সে কথা মাথায় রেখে এই কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ২ দিনের কার্ফু জারি করে প্রশাসন। সেই কার্ফু আবার তুলে নেওয়া হয় মঙ্গলবার রাতে। জম্মু  ও কাশ্মীর প্রশাসনের এই পদক্ষেপকে অর্থহীন বলে কটাক্ষ করলেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি।

আরও পড়ুন-রাম মন্দির স্থাপনের ফলে অযোধ্যার অর্থনীতির ভোল পাল্টে যাবে: মোদী

বুধবার মেহবুবা টুইট করেন, 'গতরাতে যে কার্ফু তুলে নেওয়া হয়েছে তার কোনও অর্থ হয় না। উপত্যকার মানুষ এখন খাঁচাবন্দি। তার পরেও ওই বেআইনি কার্ফু কীসের জন্য! জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসন কোনও রেকর্ড রাখতে চায় না। কিন্তু মানুষকে দিনের পর দিন বন্দি করে রেখেছে।' প্রসঙ্গত, বর্তমানে মেহবুবা মুফতি নিজের ঘরেই আটক রয়েছেন। পাবলিক সেফটি অ্য়াক্টে তাঁকে আটক করেছে প্রশাসন। তাঁর টুইটার হ্যান্ডলটি চালান তাঁর মেয়ে ইলতিজা মুফতি।

আরও পড়ুন-'মুসলিম প্রধান দেশেও রামের উপাসনা হয়, এটাই রামায়ণের মাহাত্ম্য'

এদিকে, বুধবার জম্মু ও কাশ্মীরের বিভিন্ন জায়গায় ৫ অগাস্ট ৩৭০ ধারা রদের দিনটি উদযাপন করেছে বিজেপি। এদিন দলীয় কার্যালয়গুলিতে জাতীয় পতাকাও তোলা হয়। দিনটি কালা দিবস হিসেবে পালন করার পরিকল্পনা করেছিল বিভিন্ন বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন। সেকথা মাথায় রেখেই এই কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে কার্ফু জারি করা হয়। কিন্তু কার্ফু জারির পরই বিভিন্ন মহল থেকে সমালোচনা শুরু হয়ে যায়। তার পরই মঙ্গলবার রাতে কার্ফু তুলে নেওয়ার কথা ঘোষণা করে প্রশাসন। মানুষ ও যান চলাচলে প্রবল কড়াকড়ি করা হয়।