Canning: বাঁচাতে হবে সুন্দরবন, মাতলার চরে ২ লাখ ম্যানগ্রোভ বীজ রোপণে এগিয়ে এলেন মহিলারা

ক্যানিং মাতলা নদীর পরিত্যক্ত চরে ২ লক্ষ বিভিন্ন প্রজাতির ম্যানগ্রোভের বীজ রোপণ করা হবে। এছাড়া মাতলা অঞ্চলে বিভিন্ন প্রজাতির ৫০ হাজার ফলের গাছের চারার নার্সারি তৈরি করা হবে

Updated By: Aug 31, 2021, 01:14 PM IST
Canning: বাঁচাতে হবে সুন্দরবন, মাতলার চরে ২ লাখ ম্যানগ্রোভ বীজ রোপণে এগিয়ে এলেন মহিলারা

নিজস্ব প্রতিবেদন: ম্যানগ্রোভ যে কতটা গুরুত্বপূর্ণ তা ফের ইয়াসের সময় টের পেয়েছে সুন্দরবন। খোদ মুখ্যমন্ত্রীও ম্যানগ্রোভ রোপণের উপরে জোর দিয়েছেন বারবার। এবার মাতলা নদীর পরিত্যক্ত চরে রোপণ করা হচ্ছে ২ লাখ ম্যানগ্রোভ। এই কাজে এগিয়ে এলেন ঝড়খালির মহিলারা। মাতলা অঞ্চলের ২০০ মহিলা বিনা পারিশ্রমিকে রোপন করলেন বিভিন্ন প্রজাতির ১০ হাজার ম্যানগ্রোভের বীজ। মঙ্গলবার ঝড়খালি সবুজ বাহিনী, দিল্লির সংস্থা গুঞ্জ ও বজবজের সংগঠন প্রত্যাশা-র উদ্যোগ কাজে নেমে পড়লেন ওইসব মহিলারা।

আরও পড়ুন-'সেনা প্রত্যাহার, এত খারাপ যুদ্ধ সমাপ্তি ইতিহাসে হয়নি', বাইডেন প্রশাসনকে কটাক্ষ Trump-এর  

এদিন, সুন্দরবনের গরান,হেতাল, কেওড়া, সুন্দরি, ধুন্দল,খলসি,তরা সহ বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় ১০ হাজার বীজ রোপণ করে 'ম্যানগ্রোভ প্রমিলা বাহিনী'। ঝড়খালি সবুজ বাহিনী  সংগঠনের সভাপতি আকুল বিশ্বাস ও সম্পাদক প্রশান্ত সরকার বলেন, মাতলা অঞ্চলের প্রায় ২০০ জন মহিলা ম্যানগ্রোভকে ভালবেসে ক্যানিং মাতলা নদীর চরে ম্যানগ্রোভ বীজ রোপণের কাজে এগিয়ে আসে। আর এই বীজ রোপণের কাজে তারা কোন মজুরি নিচ্ছেন না। বাড়ির কাজকর্ম সেরে অবসর সময়ে এই সমস্ত মহিলারা এগিয়ে এসেছেন সুন্দরবনের প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষার্থে এবং ভূমিক্ষয় রোধে।

ক্যানিং মাতলা নদীর পরিত্যক্ত চরে ২ লক্ষ বিভিন্ন প্রজাতির ম্যানগ্রোভের বীজ রোপণ করা হবে। এছাড়া মাতলা অঞ্চলে বিভিন্ন প্রজাতির ৫০ হাজার ফলের গাছের চারার নার্সারি তৈরি করা হবে। আর এই নার্সারি থেকে এই অঞ্চলের পিছিয়ে পড়া অসহায় পরিবার গুলির কর্মসংস্থান গড়ে উঠবে। ফলে এলাকার সামাজিক ও গ্রামীণ অথনৈতিক উন্নয়ন ঘটবে।

আরও পড়ুন-US troops exit: শেষ আমেরিকান সেনা হিসেবে আফগানভূম ত্যাগ,  এই আর্মি জেনারেলের ছবি ভাইরাল 

এদিকে ম্যানগ্রোভ প্রমিলা বাহিনীর রীনা মন্ডল,সাবিত্রী মন্ডল,কবিতা মন্ডল,অসীমা ঘরামী,পুষ্প দেবনাথ,কালোজান লস্কর,সন্ধ্যা মন্ডল,সুমিত্রা মন্ডল, দীপালি চক্রবর্তী,করুনা হালদাররা বলেন, প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষায় ও ভূমিক্ষয় রোধে ভালবেসে ক্যানিং মাতলা নদীর চরে ম্যানগ্রোভের বীজ রোপণ করা হচ্ছে। আর এই কাজের জন্য আমরা মহিলারা কোন মজুরি নিচ্ছি না।

মাতলা-২ গ্রাম পঞ্চায়েতের সদস্য বিকাশ মজুমদার বলেন, এলাকার মহিলারা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আহ্বানে সাড়া দিয়ে ক্যানিং মাতলা নদীর পরিত্যক্ত চরে ম্যানগ্রোভ বীজ রোপণের কাজে এগিয়ে এসেছেন। এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানাই। এছাড়া এই কাজে সব ধরনের সহযোগিতা করা হচ্ছে। 

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)