চেন্নাইয়ের কলেজে রাহুল গান্ধীর অনুষ্ঠান নিয়ে তদন্তের নির্দেশ

এ নিয়ে তদন্ত করতে বলা হয়েছে। দ্রুত সেই তদন্তের রিপোর্ট জমাও দিতে বলা হয়েছে।

Updated: Mar 15, 2019, 05:05 PM IST
চেন্নাইয়ের কলেজে রাহুল গান্ধীর অনুষ্ঠান নিয়ে তদন্তের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদন: কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীর জন্য বিপাকে চেন্নাইয়ের স্টেলা মেরিজ কলেজ। গত ১৩ মার্চ ওই কলেজে হাজির হয়েছিলেন রাহুল গান্ধী। ছাত্র-ছাত্রীদের সঙ্গে একটি অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণও করেছিলেন।

এরই প্রেক্ষিতে ডিরেক্টরেট অফ কলেজিয়েট এডুকেশন (ডিসিই) নোটিস দিয়েছে চেন্নাইয়ের রিজিওনাল জয়েন্ট ডিরেক্টরকে। এ নিয়ে তদন্ত করতে বলা হয়েছে। দ্রুত সেই তদন্তের রিপোর্ট জমাও দিতে বলা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত ১০ মার্চ নির্বাচন কমিশন লোকসভা ভোটের নির্ঘণ্ট প্রকাশ করেছে। সেই সঙ্গে সঙ্গে দেশজুড়ে চালু হয়েছে নির্বাচন সংক্রান্ত আদর্শ আচরণবিধি। ওই আচরণবিধি চালু হওয়ার পর কীভাবে কলেজ ক্যাম্পাসে ছাত্রছাত্রীদের অনুষ্ঠানে একজন রাজনৈতিক নেতা থাকল, সেই প্রশ্নই জানতে চাওয়া হয়েছে ডিসিই-র তরফে।

আরও পড়ুন: পাকিস্তান সীমান্তে রাতভর যুদ্ধবিমানে মহড়া বায়ুসেনার

উল্লেখ্য, ওই অনুষ্ঠানে ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে কথা বলার সময় রাহুল গান্ধী প্রয়াত প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটলবিহারী বাজপেয়ীকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেন। তাঁর দাবি ছিল, কংগ্রেস সবসময় কাশ্মীর সমস্যা সমাধানের আপ্রাণ চেষ্টা করে। কিন্তু বাজপেয়ীর ভুল নীতির জন্য কাশ্মীরের পরিস্থিতি আরও খারাপ হয়েছে।

রাহুলের ওই মন্তব্য নিয়ে ব্যাপক আলোচনা হয়েছিল দেশজুড়ে। রাহুল গান্ধীর সমালোচনায় সরব হয়েছিল বিজেপি। পাল্টা কংগ্রেসের তরফেও রাহুলের সমর্থনে আওয়াজ ওঠাতে দেখা গিয়েছিল।

আরও পড়ুন: জঙ্গিদের বিরুদ্ধে মোদী যতটা কড়া মনমোহন তা ছিলেন না, কবুল শীলা দীক্ষিতের

কিন্তু ডিসিই-র এই পদক্ষেপ পুরো বিতর্কের মোড় ঘুরিয়ে দিল। এখন দেখার এ নিয়ে কেউ নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হয় কি না! রাজনৈতিক মহলের ধারণা, বিজেপি হয়তো নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানাবে।

কারণ, শুক্রবারই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানানোর কথা কংগ্রেসের তরফে জানানো হয়েছিল। তাই বিজেপিও হয়তো এই সুযোগ ছাড়তে চাইবে না। এ নিয়ে অবশ্য কংগ্রেস বা বিজেপি কোনও দলের তরফে কেউই কোনও মন্তব্য করেনি।

আরও পড়ুন: আপনার প্রপিতামহের জন্যই চিন আজ নিরাপত্তা পরিষদে, রাহুলকে তুলোধনা বিজেপির

তবে সবটাই নির্ভর করছে চেন্নাইয়ের রিজিওনাল জয়েন্ট ডিরেক্টরের তদন্তের রিপোর্টে কী থাকছে তার উপর।