খবর পেয়ে কয়েক সেকেন্ডেই সিদ্ধান্ত, মৃত ছেলের দেহ করোনা গবেষণায় দান বাবা-র

পাহাড়ভাঙা দুঃখের মধ্যেও ছেলের দেহ গবেষণার জন্য দান করতে পেরে কিছুটা গর্ব বোধ করছে গোটা পাল পরিবার

Updated By: Jun 17, 2021, 07:42 PM IST
খবর পেয়ে কয়েক সেকেন্ডেই সিদ্ধান্ত, মৃত ছেলের দেহ করোনা গবেষণায় দান বাবা-র

নিজস্ব প্রতিবেদন: হাসপাতাল থেকে আসা ফোনটা ধরেছিলেন সরোজ পাল। করোনা আক্রান্ত ছেলে সৈকতের মৃত্যু খবর পেয়ে এক মুহূর্তের জন্য হয়তো হাতটা কেঁপেও গিয়েছিল। কিন্তু কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই স্থির করে ফেলেন, প্যাথলজিক্যাল অটোপসির জন্য দান করবেন ছেলের দেহ।

আরও পড়ুন-জুলাইয়ের মধ্যে মাধ্যমিক-উচ্চমাধ্যমিকের রেজাল্ট, ঘোষণা Mamata-র; কীভাবে মূল্যায়ন?  

করোনা আক্রান্ত হয়ে ভাটপাড়া পদ্মপুকুরের বাসিন্দা সৈকত পাল(৪১) টানা ২১ দিন ভর্তি ছিলেন কলকাতার এক বেসরকারি হাসপাতালে। সেখান থেকে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় এমআর বাঙুরে(M R Bangur)। মঙ্গলবার সেখানেই তাঁর মৃত্য়ু হয়।

ছেলের দেহ দানের সিদ্ধান্ত নেওয়ার পরই সরোজবাবু যোগাযোগ করেন আরজি কর মেডিক্যাল কলেজে( R G Kar Medical Collage)। জানান, করোনা নিয়ে গবেষণার জন্য তিনি তাঁর ছেলের দেহ দান করতে চান। তাঁর সেই ইচ্ছানুযায়ী আজ আরজি করে হচ্ছে সৈকতের প্যাথলজিক্যাল অটোপসি।

আরও পড়ুন-গুরুগ্রামে ৮ কোটির হোটেল; ভারতে বেনামে একাধিক সম্পত্তি, হাওয়ালা যোগও রয়েছে হান-এর!

পাহাড়ভাঙা দুঃখের মধ্যেও ছেলের দেহ গবেষণার জন্য দান করতে পেরে কিছুটা গর্ব বোধ করছে গোটা পাল পরিবার। তাদের মত, সৈকতের দেহ ময়না তদন্ত করে মহামারী সম্পর্কে যদি কোনও নতুন তথ্য পাওয়া যাবে সেটা হবে সৈকতের বড় পাওয়া।

(Zee 24 Ghanta App : দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)