Purulia Cow Smuggling: পুরুলিয়ায় দুর্ঘটনায় দুধের কন্টেনার, উদ্ধার গোরু! পাচারের পথ?

গাড়ির চালক ও  খালাসি পলাতক। তাঁদের সন্ধানে তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিস। রাজ্যে গোরু পাচারের চক্র এখনও সক্রিয়', টুইট করলেন শুভেন্দু অধিকারী।

Updated By: Aug 23, 2022, 05:21 PM IST
Purulia Cow Smuggling: পুরুলিয়ায় দুর্ঘটনায় দুধের কন্টেনার, উদ্ধার গোরু! পাচারের পথ?

অনুপ মুখোপাধ্য়ায়: দুধের কন্টেনারে গোরু পাচার? পুরুলিয়ায় উদ্ধার হল ২০ থেকে ২৫ টি গোরু। বেশ কয়েকটি আবার মৃত! বেপাত্তা গাড়ির চালক ও খালাসি। 'রাজ্যে গোরু পাচারের চক্র এখনও সক্রিয়', টুইট করলেন শুভেন্দু অধিকারী।

জানা গিয়েছে, এদিন সকালে বিহার থেকে কলকাতা দিকে যাচ্ছিল দুধের একটি কন্টেনার। গাড়িটি তখন পুরুলিয়ার হুড়া থানার বিষপুরিয়া এলাকার কাছাকাছি। দুর্ঘটনা ঘটে পুরুলিয়া থেকে বাঁকুড়াগামী ৬০ এ জাতীয় সড়কে। কীভাবে? প্রত্য়ক্ষদর্শীরা জানিয়েছে, জাতীয় সড়কে গাড়ির নিয়ন্ত্রণ হারান চালক। কন্টেনারটি উলটে পড়ে রাস্তায় পাশে নয়ানজুলিতে। কিন্তু দুধ নয়, দুর্ঘটনার পরে কন্টেনার থেকে বেরিয়ে পড়ে গোরু! তাও প্রায় ২০ থেকে ২৫টি! ঘটনাটি জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়। খবর দেওয়া হয় থানায়। স্থানীয় বাসিন্দাদের সহায়তা গোরুগুলিকে উদ্ধার করেছে পুলিস। বেশ কয়েকটি গোরু মারা গিয়েছে। আহত দশটিরও বেশি।

দুর্ঘটনার পর চম্পট দেয় গাড়ির চালক ও খালাসি। তাঁদের সন্ধানে তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিস। দুধের কন্টেনারে গোরু এল কোথা থেকে? শুভেন্দু অধিকারী টুইট করেছেন, 'রাজ্যে গোরু পাচারের চক্র এখনও সক্রিয়। প্রতিটি নতুন উপায় আবিষ্কার করা হচ্ছে। নিরাপত্তার কড়াকড়ি হওয়ায় পুরনো উপায় কাজে আসছে না'।  পুষ্পা সিনেমা থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে অভিনব উপায়ে গোরু পাচার চেষ্টা। গাড়ি দুর্ঘটনার কবলে পড়ায় পাচারের ছক বানচাল'।

 

এদিকে অনুব্রত মণ্ডলের 'বেনামী' সম্পত্তির খোঁজে এদিন বোলপুর জুড়ে তল্লাশি চালাল সিবিআই। বন্ধ করে দেওয়া হল অজয় নদের উপরে টোল প্লাজা। রেজিস্ট্রি অফিসেও হানা দিলেন তদন্তকারীরা। সূত্রের খবর, কলকাতার একটি নামী প্রকাশনী সংস্থার সঙ্গেও নিয়মিত আর্থিক লেনদেন চলত অনুব্রতের! আয়-ব্যয়ের হিসেব জানতে চেয়ে আয়কর দফতরকে চিঠি দিয়েছে সিবিআই। 

সিবিআইয়ের নজরে অনুব্রত ঘনিষ্ট রাজীব ভট্টাচার্যও। কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার সূত্রে খবর, নিউটাউনের একটি ক্যানসার হাসপাতালকে রাজীবের অ্যাকাউন্ট থেকে ৫৫ লক্ষ টাকা দেওয়া হয়। শুধু তাই নয়, যখন টাকা দেওয়া হয়, তখন ওই হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন অনুব্রত মণ্ডলের ক্যানসার আক্রান্ত স্ত্রী! কেন হাসপাতালকে টাকা দিলেন? রাজীবকে ইতিমধ্যেই একদফা জিজ্ঞাসাবাদ করেছেন তদন্তকারীরা। বেশ কিছু নথিও বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: Anubrata Mondal, Cattle Smuggling Case: অবিলম্বে জামিন দিতে হবে কেষ্টকে, নইলেই মাদক মামলা! হুমকি চিঠি বিচারককে

জানা গিয়েছে, একসময়ে বীরভূমের ছোট চাল ব্য়বসায়ী ছিলেন রাজীব ভট্টাচার্য। অনুব্রত মণ্ডলের ঘনিষ্ট হওয়ার পর বিপুল সম্পত্তি মালিক হন তিনি। অনুব্রত-যোগের অভিযোগ অবশ্য অস্বীকার করেছেন রাজীব। তাঁর দাবি, 'অনুব্রত মণ্ডলের সঙ্গে রাজনৈতিক সম্পর্ক। ব্যবসার কোনও সম্পর্ক নেই। ব্যাঙ্ক থেকে লোন নিয়ে রাইস মিল করেছি। যে রটনা রটানো হচ্ছে, তার কোনও ভিত্তি নেই'।

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)