Group-D Recruitment: CBI অনুসন্ধানের নির্দেশ খারিজ ডিভিশন বেঞ্চের, দিতে হবে বেতনও

অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি রঞ্জিত কুমার বাগের নজরদারিতে বিশেষ অনুসন্ধানকারী দল গঠন করল ডিভিশন বেঞ্চ।

Updated By: Dec 6, 2021, 01:27 PM IST
Group-D Recruitment:  CBI অনুসন্ধানের নির্দেশ খারিজ  ডিভিশন বেঞ্চের, দিতে হবে বেতনও

নিজস্ব প্রতিবেদন : গ্রুপ-ডি নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় সিবিআই অনুসন্ধানের নির্দেশ খারিজ করে দিল আদালত। নির্দেশ খারিজ করল বিচারপতি হরিশ ট্যান্ডন ও বিচারপতি রবীন্দ্রনাথ সামন্তর ডিভিশন বেঞ্চ। সিঙ্গল বেঞ্চের নির্দেশ খারিজ করে হাইকোর্টের অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি রঞ্জিত কুমার বাগের নজরদারিতে বিশেষ অনুসন্ধানকারী দল গঠন করল ডিভিশন বেঞ্চ। অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতিকে ছাড়া অনুসন্ধানকারী দলে থাকছেন আরও তিন সদস্য।

কে কে থাকছেন ওই অনুসন্ধানকারী দলে? জানা গিয়েছে, অনুসন্ধানকারী দলে স্কুল সার্ভিস কমিশনের পক্ষে থাকছেন আশুতোষ ঘোষ। থাকছেন মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সহ-সচিব (প্রশাসন) পারমিতা রায়। সেইসঙ্গেই থাকছেন হাইকোর্টের একজন আইনজীবী অরুণাভ ব্যানার্জি। অনুসন্ধানকারী দলকে ২ মাসের মধ্যে আদালতে রিপোর্ট জমা দিতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি, আদালত আরও জানিয়েছে যে, দলের সমস্ত ব্যয়ভার বহন করবে রাজ্য। একইসঙ্গে স্কুল সার্ভিস কমিশনকে আগামীকালের মধ্যে সমস্ত সুপারিশপত্র হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেলের কাছে জমা করতেও নির্দেশ দিয়েছে ডিভিশন বেঞ্চ।

প্রসঙ্গত, গ্রুপ-ডি নিয়োগে অস্বচ্ছতা রয়েছে। গভীর জলের মাছদের ধরতে হবে। এই পর্যবেক্ষণের ভিত্তিতে নিয়োগ মামলায় সিবিআই অনুসন্ধানের নির্দেশ দিয়েছিল সিঙ্গল বেঞ্চ। যার বিরোধিতা করে রাজ্য। সিঙ্গল বেঞ্চের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে ডিভিশন বেঞ্চে যায় রাজ্য, স্কুল সার্ভিস কমিশন ও মধ্যশিক্ষা পর্ষদ বোর্ড। আজ ডিভিশন বেঞ্চে সেই আবেদনের প্রেক্ষিতে শুনানিতেই খারিজ হয়ে গেল সিঙ্গল বেঞ্চের নির্দেশ। তবে আজ আদালতে একজন বিচারপতিকে দিয়ে এক সদস্যের কমিটি গড়ে তদন্তের আর্জি জানিয়েছিল স্কুল সার্ভিস কমিশন। সেই আর্জি খারিজ করে দেয় ডিভিশন বেঞ্চ।

অন্যদিকে, আদালতে এদিন আবার বিতর্কিত সওয়াল করেন নিযুক্তদের আইনজীবী। তিনি দাবি করেন, "কোনও তদন্তের প্রয়োজন নেই। মামলাকারীরা সিঙ্গল বেঞ্চের আবেদনপত্রে কোনও তদন্তের দাবি করেনি।" যা সাফ খারিজ করে দিয়ে বিচারপতি হরিশ ট্যান্ডন সাফ বলেন, "মামলার শুনানি চলাকালীন সবপক্ষই স্বীকার করেছে এবং নথিও বলছে যে দুর্নীতি হয়েছে। তাই তদন্ত করে সত্য উদঘাটনের প্রয়োজন রয়েছে। কাউকে ছাড়া হবে না। ন্যূনতম অনিয়ম হয়ে থাকলেও ন্যায়বিচারের স্বার্থে তদন্ত করতেই হবে। আদালত নীরব দর্শক হয়ে থাকতে পারে না।"

বিচারপতি ট্যান্ডন পাল্টা প্রশ্ন করেন, "শুনানির সময় দাখিল করা নথিতে যদি দেখা যায় যে নিয়োগ প্রক্রিয়ায় দুর্নীতি হয়েছে, যোগ্য প্রার্থীদের বঞ্চিত করা হয়েছে, তাহলেও কি আদালত বিতর্কিতভাবে নিযুক্তদের বরখাস্ত করতে পারে না? আদালত কি তদন্ত করতে পারে না?" তবে মামলা চলাকালীনও বিতর্কিত প্রার্থীদের বেতন চলবে বলে আজ জানিয়েছে ডিভিশন বেঞ্চ। সিঙ্গল বেঞ্চ এই বেতন বন্ধের নির্দেশ দিয়েছিল। কিন্তু আজ ডিভিশন বেঞ্চ স্পষ্ট জানিয়েছে যে, মামলায় অন্তর্ভুক্ত প্রার্থীদের বেতন চলবে। বেতন বন্ধ করা যাবে না। তদন্তের রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত বেতন দেওয়া হবে।

আরও পড়ুন, EPFO: EDLI স্কিমে পাবেন ৭ লক্ষ টাকা পর্যন্ত সুবিধা, জেনে নিন কীভাবে

Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App