'আমাদের ভোট দিয়েছেন, যা চাইবেন, করে দেব', খড়গপুরবাসীকে আশ্বাস মুখ্যমন্ত্রীর

"খড়্গপুরের মানুষ আমাদের ভোট দিয়েছেন তাই মানুষকে আমাদেরও পরিষেবা দিতে হবে।"

Updated By: Dec 9, 2019, 08:47 PM IST
'আমাদের ভোট দিয়েছেন, যা চাইবেন, করে দেব', খড়গপুরবাসীকে আশ্বাস মুখ্যমন্ত্রীর

নিজস্ব প্রতিবেদন : "মানুষ আমাদের দিয়েছেন। আমাদেরও মানুষকে দিতে হবে।" খড়গপুরে গিয়ে জেলা তৃণমূল নেতাদের এই নির্দেশই দিয়ে এলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। খড়গপুর উপনির্বাচনে তৃণমূল প্রার্থী প্রদীপ সরকারের বিপুল ভোটে জয়লাভের পর, এদিন মুখ্যমন্ত্রী প্রথমবার রেলশহরে আসেন। উপনির্বাচনে পাশে থাকার জন্য, তৃণমূলকে জয়ী করার জন্য খড়্গপুরবাসীকে কৃতজ্ঞতা ও অভিনন্দন জানান তিনি।

এরপরই দলীয় কর্মীদের উদ্দেেশে তৃণমূল নেত্রী বলেন, "খড়্গপুরের মানুষ আমাদের ভোট দিয়েছেন তাই মানুষকে আমাদেরও পরিষেবা দিতে হবে। এখানকার মানুষ একটা আইসিসিইউ চালু করতে বলেছেন। আমরা করে দেব।" এদিন খড়্গপুরের জন্য বেশকিছু প্রকল্প ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। জানান, "বিশ্ববিদ্যালয়কে আরও ৫ একর জমি দেওয়া হবে। খড়গপুরে তৈরি করে দেওয়া হবে একটা পরিবহন হাব।" মমতা এদিন আরও বলেন, "এই জেলায় আগে কিছু ছিল না। শুধু কঙ্কাল পাওয়া যেত। আজও নন্দীগ্রামের মানুষগুলো ফিরে আসেনি। আমরা আসার পর অনেক কিছু করে দিয়েছি। কলেজ হয়েছে, বিশ্ববিদ্যালয় হয়েছে। এখানকার মানুষ আমাদের ভোট দিয়েছেন। তাই ওরা যা চাইবেন, আমরা ওদের করে দেব।"

খড়গপুরের বাসিন্দাদের একটা বড় অংশ অবাঙালি। তাদের উদ্দেশে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, "বাংলাকে আপনাদের নিজেদের ঘর মনে করুন। আমি চাই বাঙালি, বিহারি, মারাঠি সবাই একসাথে মিলেমিশে থাকুন। সবাই মিলে জোট বাঁধার সময় হয়েছে।" এদিন খড়গপুরের সভা থেকে এনআরসি, নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের বিরুদ্ধে একজোট হওয়ার ডাক দেন মুখ্যমন্ত্রী। বলেন, "আগে রোটি, কাপড়া, মকান দিন। দেশে ভাগাভাগি করবেন না। যারা ফেট্টি বেঁধে রাজনীতি করছে, তাদের জায়গা বাংলা নয়। ফেট্টিবাজদের ভয় পাবেন না। আমরা থাকতে কোনও এনআরসি (NRC), সিএবি (CAB) হবে না।"

আরও পড়ুন, 'এত দাম কেন?', পেঁয়াজের দাম নিয়ে খোঁজ নিতে সটান যদুবাবুর বাজারে হাজির মুখ্যমন্ত্রী

রেল সদর খড়গপুরে রেলের কর্মীরা থাকেন। আজকের সভায় কেন্দ্রের রেলের বেসরকারিকরণ সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেও সুর চড়ান মুখ্যমন্ত্রী। বলেন, "ভয় পাবেন না। ওয়াদা করছি আপনাদের পাশে আছি, থাকব।"