close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

সুদূর আফ্রিকায় পূজিত হন সিদ্ধাদাতা গণেশ! ৫০ বছর ধরে ধুমধাম করে হচ্ছে পুজো

কুর্তা-পাজামা পরে মণ্ডপে হাজির হয়ে গণপতির আরাধনা করেন আফ্রিকানরা।

Updated: Sep 11, 2019, 06:51 PM IST
সুদূর আফ্রিকায় পূজিত হন সিদ্ধাদাতা গণেশ! ৫০ বছর ধরে ধুমধাম করে হচ্ছে পুজো

নিজস্ব প্রতিবেদন : আফ্রিকায় পূজিত হচ্ছেন সিদ্ধিদাতা গণেশ। তাও গত ৫০ বছর ধরে ধুমধাম করে চলছে পুজো। দেশের বিভিন্ন জায়গায় মহাধুমধাম করে পুজো হয়েছে সিদ্ধিদাতা গণেশের। কিন্তু দেশের বাইরেও যে গণপতি এভাবে পূজিত হন, কে জানত! ২ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হয়েছে গণেশ পুজো। অন্যবারের তুলনায় এবার শহর কলকাতাতেও গণেশ পুজোর আধিক্য রয়েছে। সারা দেশের বেশ কিছু জায়গায় আগামীকাল পর্যন্ত চলবে গণপতির আরাধনা। 

আরও পড়ুন-  নাভিশ্বাস সাধারণ মানুষের, পাকিস্তানে দুধের দাম ছাপিয়ে গেল পেট্রোল-ডিজেলকেও

বিদেশেও রয়েছেন সিদ্ধিদাতা গণেশের ভক্ত। সুদূর আফ্রিকার ঘানায় ৫০ বছর ধরে চলছে গণেশ পুজো। ঘানার একটি অঞ্চলে বসবাসকারী হিন্দুরা গণপতির মূর্তি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। তার পর থেকে তাঁরাই পুজো করেন। তাঁদের সঙ্গে গণপতির আরাধনায় মেতে ওঠেন আফ্রিকানরা। এমনকী গণপতির বিসর্জনের দিনও স্থানীয় মানুষজন আনন্দে মেতে ওঠেন। পুজোর রীতি পালন থেকে শুরু করে বিসর্জনে নাচ, সবই হয় একসঙ্গে। দিনকয়েক আফ্রিকানরাও যেন গণপতির ভক্ত হয়ে ওঠেন। এমনকী, কুর্তা-পাজামা পরে মণ্ডপে হাজির হয়ে গণপতির আরাধনা করেন আফ্রিকানরা।

আরও পড়ুন-  সিটে ঘুমাচ্ছেন স্ত্রী; বিমানে টানা ৬ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে রইলেন স্বামী, ইন্টারনেটে ভাইরাল সেই ছবি

ঘানায় প্রায় ১২ হাজার হিন্দুর বাস। তাঁরা সবাই সিদ্ধিদাতা গণেশের আরাধনায় মেতে ওঠেন। সঙ্গে থাকেন আফ্রিকানরা। সেখানকার মানুষরা বলছেন, তিনদিন গণপতি এখানে পূজিত হন। তার পর ধুমধাম করে মূর্তি বিসর্জন দেওয়া হয়।