বাংলায় স্বাগত, সিঙ্গুর পর্বের একযুগ পর Tata-র পক্ষে সওয়াল পার্থ-র

রাজ্যে টাটাদের যদি স্বাগত জানানো হয়ে তাহলে কি সিঙ্গুরে তাদের কোনও শিল্প গড়তে সুয়োগ দেওয়া হবে? পার্থ চট্টেপাধ্যায় বলেন, টাটারা সিঙ্গুরে কেন ফিরবে?

Updated By: Jul 19, 2021, 07:55 PM IST
বাংলায় স্বাগত, সিঙ্গুর পর্বের একযুগ পর Tata-র পক্ষে সওয়াল পার্থ-র

নিজস্ব প্রতিবেদন: সিঙ্গুরে ন্যানো-র কারখানা গড়তে পারেনি টাটা। বাংলা থেকে তল্পিতল্পা গুটিয়ে তাদের চলে যেতে হয়েছে মোদী রাজ্যের সানন্দে। তার পরেও সিঙ্গুরে অন্য কোনও শিল্প হয়নি। বড়মুখ করে বলার মতো গত ১০ বছর কোনও বড় শিল্প গড়ে তুলতে পারেনি রাজ্য সরকার। তবে একযুগ পরে সেই টাটাকে বাংলায় স্বাগত জানালেন শিল্পমন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন-মোদী বিরোধিতা করলেই ফোনে আড়ি, অমিত শাহ-র ইস্তফার দাবি অধীরের 

সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, ''টাটার সঙ্গে আমাদের কোনও শত্রুতা ছিল না। ওদের বিরুদ্ধে কোনও লড়াইও আমরা করিনি। লড়াইটা ছিল বাম সরকারের জমি অধিগ্রহণের বিরুদ্ধে।'

পার্থবাবু বলেন, 'টাটারা দেশের অত্যন্ত সম্মানীয় শিল্পসংস্থা। তাদের কোনও দোষ ছিল না। বাম সরকার জোর করে জমি অধিগ্রহণ করার নীতি নিয়েছিল। আমরা বলব, টাটারা সব সময়েই এরাজ্যে স্বাগত।'

উল্লেখ্য, রাজ্য থেকে টাটাদের তাড়ানোর জন্য় তৃণমূলকেই দায়ী করে বামেরা। পাশাপাশি তাদের দাবি, ওই সিঙ্গুর আন্দোলনে ভর করেই রাজ্যে ক্ষমতায় এসেছিল তৃণমূল সরকার। কিন্তু পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের দাবি, রাজ্যে আরও একটি টাটা সেন্টার তৈরির আগ্রাহ প্রকাশ করেছে টাটা। রাজ্যে টাটা মেটালিক ও টিসিএস এর অফিস রয়েছে। তার পরেও যদি টাটা রাজ্যে বড় কোনও শিল্প গড়তে চায় তাহলে তারা স্বাগত।

আরও পড়ুন-চাপ বাড়াছে CID! শুভব্রতর রহস্যমৃত্যুর তদন্তে এবার জেরা শুভেন্দুর ২ প্রাক্তন রক্ষীকে  

রাজ্যে টাটাদের যদি স্বাগত জানানো হয়ে তাহলে কি সিঙ্গুরে তাদের কোনও শিল্প গড়তে সুয়োগ দেওয়া হবে? পার্থ চট্টেপাধ্যায় বলেন, টাটারা সিঙ্গুরে কেন ফিরবে? ওই জমি ইতিমধ্যেই কৃষকদের ফেরত দেওয়া হয়েছে। ওই জায়গায় আমরা কৃষিভিত্তিক শিল্প গড়ার পরিকল্পনা করেছি। অন্য কোথাও শিল্প গড়া যেতেই পারে। তবে জোর করে জমি অধিগ্রহণ নয়।
 
(Zee 24 Ghanta App : দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)