করোনা মোকাবিলায় WHO-কে ২ কোটি ডলার সাহায্যের আশ্বাস ‘শ্মশানপুরী’ চিনের

নোভেল করোনাভাইরাসকে ইতিমধ্যে ‘মহামারী ভাইরাস’ বলে চিহ্নিত করেছে হু। প্রায় ৯৮টি দেশে এই মুহূর্তে করোনা আক্রান্ত। এই ভাইরাস মোকাবিলায় অধিকাংশ দেশেই নেই পর্যাপ্ত চিকিত্সা পরিষেবা

Updated By: Mar 8, 2020, 04:32 PM IST
 করোনা মোকাবিলায় WHO-কে ২ কোটি ডলার সাহায্যের আশ্বাস ‘শ্মশানপুরী’ চিনের
ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: দেশ নোভেল করোনায় জর্জরিত। প্রায় ৯০ হাজার মানুষ করোনার সঙ্গে লড়ছেন। ইতিমধ্যেই হার স্বীকার করেছে ৩ হাজারের বেশি। তবুও করোনার গ্রাস থেকে ফিরিয়ে আনতে মাটি আঁকড়ে দিন-রাত লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন চিকিত্সক-নার্সরা। কার্যত শ্মাশানপুরীতে পরিণত হয়ছে হুয়ান, ঝেজিয়াং, ফুজিয়ান। এরপরও ঘুরে দাঁড়ানোর আশা ছাড়েনি চিন। শুধু তাই নয়, বিশ্বজুড়ে করোনার প্রভাব থেকে বাঁচতে চিনই আশা দেখাচ্ছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু)-কে ২ কোটি ডলার সাহয্যের আশ্বাস দিয়েছে বেজিং।

নোভেল করোনাভাইরাসকে ইতিমধ্যে ‘মহামারী ভাইরাস’ বলে চিহ্নিত করেছে হু। প্রায় ৯৮টি দেশে এই মুহূর্তে করোনা আক্রান্ত। এই ভাইরাস মোকাবিলায় অধিকাংশ দেশেই নেই পর্যাপ্ত চিকিত্সা পরিষেবা। সে সব দেশে ন্যূনতম চিকিত্সা পরিকাঠামো গড়ে তুলতে আর্থিক সাহায্যের আহ্বান করে হু। চিন সময় নষ্ট করে সিদ্ধান্ত নেয় ২ কোটি ডলার সাহায্য করার। হু-র ডিরেক্টর জেনারেল টেডরস আধানমের নেতৃত্বে করোনা কবলিত জায়গায় ক্লান্তিহীনভাবে কাজ করে চলেছে চিকিত্সকরা।

আরও পড়ুন- গভীর রাতে গ্রেফতার ইয়েস ব্যাঙ্কের প্রতিষ্ঠাতা রানা কাপুর

এখনও পর্যন্ত দুনিয়ার ৯৮টি দেশে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখেরও বেশি। মৃতের সংখ্যা ৩৪৫৬ জন। চিন, ইরান, দক্ষিণ কোরিয়া ও ইতালি সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত। অন্যদিকে, সংবাদসংস্থা এএনআইয়ের খবর অনুযায়ী পঞ্জাবের হোসিয়ারপুরে ২ জনের দেহে করোনাভাইরাস রয়েছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। এরা ২ জনই ফিরেছেন ইতালি থেকে। তবে পুনে থেকে তাদের রক্ত পরীক্ষার রিপোর্ট এলেই এ ব্যাপারে নিশ্চিত হওয়া যাবে। লাদাখে ২ জনের দেহে করোনাভাইরাস মেলায় সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে কাশ্মীরের বহু স্কুলে ছুটি দিয়ে দেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলটির প্রিন্সিপ্যাল সেক্রেটারি রোহিত কানসাল সাধারণ মানুষের কাছে রোগ প্রতিরোধ সাহায্যের আবেদন জানিয়েছেন।