Pornography Case: অবশেষে পাকড়াও বিধাননগর পর্নোগ্রাফিকাণ্ডের মূল পাণ্ডা

গতবছরই তার বিরুদ্ধে পর্ন ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে মডেল পাচারের অভিযোগ আনেন এক উঠতি মডেল। 

Updated By: Oct 24, 2021, 02:02 PM IST
Pornography Case: অবশেষে পাকড়াও বিধাননগর পর্নোগ্রাফিকাণ্ডের মূল পাণ্ডা

নিজস্ব প্রতিবেদন: গ্রেফতার হল বিধাননগর পর্নোগ্রাফিকাণ্ডে মূল অভিযুক্ত প্রকাশ দাস। রবিবার দক্ষিণ কলকাতা থেকে তাকে গ্রেফতার করে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিস। গত মার্চ মাসে এই ঘটনায় গ্রেফতার করা হয়েছিল ৫ জনকে। এবার পুলিসের জালে মূল অভিযুক্ত। গতবছরই তার বিরুদ্ধে পর্ন ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে মডেল পাচারের অভিযোগ আনেন এক উঠতি মডেল। 

২০২০ সালের ডিসেম্বর মাসে টলিউডের এক উঠতি মডেল বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানায় অভিযোগ জানায় যে, এক ব্যক্তির সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর পরিচয় হয়। ঐ ব্যক্তি জানায়, রানিকুঠি এলাকায় তাঁর একটি প্রোডাকশন হাউস রয়েছে। ঐ মডেলকে টলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে সুযোগ করে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেয় ঐ ব্যক্তি। সেই অনুযায়ী উঠতি মডেল ওই ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ করলে প্রথমে তাঁকে দুটি অ্যাসাইনমেন্ট দেয় ঐ ব্যক্তি। এরপর তাঁকে বেশ কয়েকজনের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেয় ঐ ব্যক্তি। পরবর্তীতে তাঁকে বিধাননগর কমিশনারেট এলাকার একটি হোটেলে নিয়ে গিয়ে মাদক খাইয়ে জোর করে পর্ণোগ্রাফি শুট করায় বলে অভিযোগ করেন ঐ মডেল। ওই যুবতীর অভিযোগ, তাঁকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে পর্নোগ্রাফি শুট করতে বাধ্য করা হয়েছিল। এরপরেই বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানায় অভিযোগ জানায় ওই মডেল। ঘটনার তদন্ত শুরু করে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ গত মার্চ মাসে ৫ জনকে এই ঘটনায় গ্রেফতার করে। তবে এই ঘটনার মূল অভিযুক্ত পুলিশের নজর এড়িয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছিল এতোদিন। অবশেষে ১০ মাস পর গতকাল কলকাতার রিজেন্ট পার্ক এলাকা থেকে অভিযুক্ত প্রকাশ দাসকে গ্রেফতার করে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ। 

আরও পড়ুন: Ananya Pandey: NCB-র জেরায় জেরবার প্রেমিকা, ফুলে তোড়া অনন্যার বাড়িতে ঈশান

পুলিশ সূত্রে খবর, অভিযুক্ত প্রকাশ দাস সোশ্যাল মিডিয়া মারফত বিভিন্ন উঠতি মডেলদের সঙ্গে যোগাযোগ করত। তারপর তাদের টলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে সুযোগ দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে তাদের কনফিডেন্স অর্জন করত ঐ ব্যক্তি। পরবর্তীতে সেই মডেলদের এই পর্নোগ্রাফি চক্রের হাতে তুলে দিয়ে  অর্থ উপার্জন করত ঐ ব্যক্তি। এই অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ওই যুবতী বাদেও আরও বেশ কয়েকজন যুবতী একই অভিযোগ করেছে বলে পুলিস সূত্রে খবর। অভিযুক্তের মোবাইল ফোন বাজেয়াপ্ত করেছে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিস। সেখান থেকে অনেক উঠতি মডেলের সঙ্গে কথোপকথনের প্রমাণ পাওয়া গিয়েছে বলে পুলিস সূত্রে খবর। আজ অভিযুক্তকে বিধাননগর মহকুমা আদালতে তোলা হবে। সূত্রের খবর, পুলিস তাকে নিজেদের হেফাজতে নেওয়ার আবেদন জানাবে। এই ব্যক্তির এর সঙ্গে আর কাদের যোগাযোগ রয়েছে বা এই চক্রের সঙ্গে আরও কেউ জড়িত আছে কিনা তা তদন্ত করে দেখছে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিস।

  (Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)