স্বামীর সঙ্গে থাকতে বাধ্য করা যাবে না স্ত্রীকে, সুপ্রিম কোর্ট

সুপ্রিম কোর্ট জানিয়ে দেয়, স্ত্রী দাসী নন বা কোনও অস্থাবর সম্পত্তিও নন।

Updated By: Mar 3, 2021, 06:57 PM IST
স্বামীর সঙ্গে থাকতে বাধ্য করা যাবে না স্ত্রীকে, সুপ্রিম কোর্ট

নিজস্ব প্রতিবেদন: মেয়েরা কি 'শ্যাটেল'? প্রশ্ন তুলে দিল শীর্ষ আদালত। এক ব্যক্তি সুপ্রিম কোর্টের কাছে এমন রায়দানের আবেদন করেছিলেন, যাতে তাঁর স্ত্রী তাঁর সঙ্গেই থাকেন । সেই মামলার প্রেক্ষিতে সুপ্রিম কোর্ট জানিয়ে দেয়, স্ত্রী দাসী নন বা কোনও অস্থাবর সম্পত্তিও নন।

'শ্যাটেল' (Chattel) শব্দটির অর্থ-- দাস  (slave) অথবা অস্থাবর সম্পত্তি (tangible piece of property)। Supreme Court ওই ব্যক্তির মামলার সূত্রে উল্টে তাঁকেই (তাঁর আইনজীবীকে) প্রশ্ন করেছে, মহিলারা (woman) কি দাসী নাকি যে, তাঁরা স্বামীর সঙ্গে থাকতে বাধ্য থাকবেন? সংশ্লিষ্ট মহলের মত, এই রায় দিতে গিয়ে সুপ্রিম কোর্ট নারীর ক্ষমতায়নের প্রশ্নটিকে বেশ কয়েক ধাপ এগিয়ে দিয়েছে। নারীর মর্যাদার প্রশ্নটিও এ ক্ষেত্রে আরও গৌরবান্বিত হয়েছে।    

আরও পড়ুন: নজরে Matua ভোট, এবার ওপার বাংলার মতুয়া ধাম সফরে Modi

ঘটনাটি কী হয়েছে? যে-ব্যক্তির মামলার জেরে এই শুনানি তাঁর স্ত্রী আদালতে জানিয়েছিলেন, ২০১৩ সালে বিয়ের পর থেকে পণের জন্য (Dowry) তাঁর উপর নির্যাতন চালাতেন স্বামী। স্বামীই তাঁকে বাড়ি থেকে চলে যেতে বাধ্য করেন। ২০১৫ সালে খোরপোশের জন্য মামলাও করেন মহিলা। গোরক্ষপুরের আদালত ওই ব্যক্তিকে প্রতি মাসে ২০ হাজার টাকা খোরপোশ দেওয়ার আদেশ দেয়। এর পরেই বিবাহবন্ধনের অধিকার পুনরুদ্ধারের আবেদন করে ওই ব্যক্তি জানান, যখন তিনি একসঙ্গেই (স্ত্রীর সঙ্গে) থাকতে চান তখন আর খোরপোশ দেওয়ার প্রশ্ন কেন উঠছে? সাম্প্রতিক শুনানিটি চলাকালীন ওই ব্যক্তির আইনজীবী ওই মহিলাকে তাঁর স্বামীর কাছে ফিরে যাওয়ার জন্য চাপ দিতে থাকেন। তখনই শীর্ষ আদালত জানায়, স্ত্রী কোনও কেনা সম্পত্তি নন বা দাসীও নন। তিনি যখন কোথাও যেতে চান না, তখন তাঁকে পণ্যের মতো কোথাও পাঠানো যায় না!

আরও পড়ুন: 'সরকার বিরোধী মত দেশদ্রোহ নয়', ফারুক-মামলা খারিজ করে মত Supreme Court-র